ঢাকা, অক্টোবর ২১, ২০১৮, ৬ কার্তিক ১৪২৫
---
bbc24news.com
প্রথম পাতা » জাতীয় » হাঁপানি ও অ্যালার্জি এড়াতে জীবনযাত্রায় পরিবর্তন চাই
মঙ্গলবার ● ১৯ ডিসেম্বর ২০১৭, ৬ কার্তিক ১৪২৫
Email this News Print Friendly Version

হাঁপানি ও অ্যালার্জি এড়াতে জীবনযাত্রায় পরিবর্তন চাই

---বিবিসি২৪নিউজ,হাঁপানি রোগ ও অ্যালার্জি আজ শিশু-কিশোরদের জন্যও একটা বড় সমস্যা৷ ফাস্ট ফুড, অস্বাস্থ্যকর জীবনযাত্রা এর জন্য অন্তত খানিকটা হলেও দায়ী, এমনটা আগেই জানা ছিল৷ এবার তার স্পষ্ট প্রমাণ পাওয়া যাচ্ছে৷

বসন্তে প্রকৃতি আবার জেগে উঠছে৷ কিন্তু অনেক মানুষের জন্য বড় কষ্টের এক সময় শুরু হচ্ছে৷ ফুলের পরাগ বা পুষ্পরেণু তাদের সর্দিকাশি ও চোখ ফোলার জন্য দায়ী৷ ক্রমশঃ আরও বেশি মানুষ অ্যালার্জিতে ভুগছেন৷ শরীরের প্রতিরোধ ব্যবস্থার মাত্রাতিরিক্ত প্রতিক্রিয়াকে ডাক্তাররা ‘একবিংশ শতাব্দীর মহামারি’ হিসেবে বর্ণনা করছেন৷ কিন্তু আপাতদৃষ্টিতে নির্দোষ ফুলের পরাগ কেন আমাদের এত কাহিল করে দেয়?

মারিয়া গ্রাফ ও তাঁর ১০ বছরের কন্যা আনা এক খামারবাড়িতে থাকেন৷ দীর্ঘমেয়াদি এক গবেষণায় স্বেচ্ছাসেবি হিসেবে তাঁরা এই প্রশ্নের জবাব খুঁজতে সহায়তা করছেন৷ শিশু হিসেবেই আনা গোয়ালে নানা রকম জীবাণুর সংস্পর্শে এসেছে৷ সে কারণেই কি তার ইমিউন সিস্টেম পুষ্পরেণুর বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলেছে?

হলৎসলার পরিবার এমন এক ফ্ল্যাটে বসবাস করে, যেখানে কোনো গৃহপালিত পশু নেই৷ সে কারণে কি ১০ বছর বয়সি রাফায়েলের অ্যালার্জির ঝুঁকি তুলনামূলকভাবে বেশি?

মাঝে মাঝেই নাক বন্ধ থাকে অথবা ঠান্ডা লাগে৷ তার ওপর এর জন্য কোনো ওষুধ খেয়েও লাভ হয় না৷ এমনকি বিছানায় শুয়ে থেকেও ঠিকমতো বিশ্রাম হয় না, বরং উল্টোটাই হয়৷ কারণ বিছানায় রয়েছে ধুলোবালি, ছারপোকা, যা সাধারণ চোখে সেভাবে দেখা যায় না৷ তাই যতক্ষণ এগুলো পুরোপুরি পরিষ্কার না হবে, ততক্ষণ অ্যালার্জির কষ্ট থাকবেই৷

শিশু চিকিৎসক এরিকা ফন মুৎসিউস গবেষণা প্রকল্পের নেতৃত্ব দিচ্ছেন৷ এর ফলাফল অত্যন্ত স্পষ্ট৷ তিনি বলেন, ‘‘আমরা দেখেছি, যে সব শিশু খামারবাড়িতে থাকে, অন্যদের তুলনায় তাদের হে ফিভার, হাঁপানি বা অ্যালার্জি অনেক কম হয়৷ এই শিশুরা খুব কম বয়সে গোয়ালে গিয়ে গরুর দুধ পান করলে এবং তাদের মায়েরা গর্ভবতী অবস্থায় সেখানে সময় কাটালে সবচেয়ে বেশি উপকার পাওয়া যায়৷ অর্থাৎ তখন শিশুদের হাঁপানি রোগ ও অ্যালার্জির সম্ভাবনা প্রায় ৫০ শতাংশ কমে যায়৷”

স্বাস্থ্যবিধি মেনে অতিরিক্ত পরিচ্ছন্নতার ফলে কি রোগের ঝুঁকি বাড়ছে? রাফায়েল এই তত্ত্বকে কার্যত সত্য প্রমাণিত করছে৷ ঘরের মধ্যে ধুলাবালি ও ফুলের পরাগের সংস্পর্শে এলে তার শরীরে প্রতিক্রিয়া দেখা যায়৷ পাঁচ বছর বয়স থেকেই সে হে ফিভার ও হাঁপানি রোগে ভুগছে৷ বসন্তকাল তার জন্য বড় দুঃখের, কারণ তাকে এ সময় যতটা সম্ভব বাড়িতেই থাকতে হয়৷

অন্যদিকে আনা অ্যালার্জি-মুক্ত৷ কিন্তু তার এই সুরক্ষা ঠিক কোথা থেকে আসে? গবেষকরা একটি বিষয় জানতে পেরেছেন৷ শিশুরা খামারে গরুর যে তাজা দুধ পান করে, তাতে বাজারে প্যাকেটের দুধের তুলনায় অনেক বেশি জীবাণু থাকে৷ শরীরের প্রতিরোধ ব্যবস্থা তখন অনেক সহজে মানিয়ে নিতে পারে৷
নির্বাচিত প্রতিবেদন
পশ্চিমের তুলনায় আফ্রিকায় খাবারের মেন্যুতে থাকে সুষম বণ্টন

পশ্চিমা খাবার বা ফাস্ট ফুডের ভক্তের সংখ্যা নেহায়েত কম নয়৷ আর হবেই বা না কেন? কিনে নিয়েই তো ঝটপট খেয়ে ফেলা যায়৷ খেতেও মজা৷ কিন্তু ফাস্ট ফুড, অনেক ক্ষেত্রেই পাকস্থলীর রোগ এবং অ্যালার্জির জন্যে দায়ী, তা জানেন কী? (11.08.2010)
পোকামাকড় খাওয়াতে আসছে সুইস সুপারশপ
হাঁপানি নিরাময়ে মৎস থেরাপি

অ্যালার্জির বাড়-বাড়ন্তের সঙ্গে কি সামগ্রিকভাবে আমাদের খাদ্যাভ্যাস জড়িত? উল্ম বিশ্ববিদ্যালয়ের চিকিৎসক গাব্রিয়েলে নাগেল ও তাঁর সহকর্মীরা সেই প্রশ্নের উত্তর খুঁজছিলেন৷ বিশ্বব্যাপী এক সমীক্ষার আওতায় তাঁরা শিশু ও কিশোরদের অ্যালার্জি সম্পর্কে তথ্য সংগ্রহ করছিলেন৷

বিশাল এই প্রকল্পের আওতায় তাঁরা ৫১টি দেশে প্রায় ৫ লক্ষ ছেলেমেয়েকে জেরা করেছেন৷ প্রো. গাব্রিয়েলে নাগেল বলেন, ‘‘শিশু-কিশোর ও তাদের বাবা-মায়েদের সরাসরি প্রশ্ন করা হয়েছিল৷ খাদ্যাভ্যাস, হাঁপানি রোগ ও অ্যালার্জি সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে চাওয়া হয়েছিল৷ দ্বিতীয় পর্যায়ে তাদের শারীরিক পরীক্ষা করা হয়েছিল৷”

এই তথ্যভাণ্ডার বিশ্লেষণ করতে চার বছর সময় লেগেছিল৷ এর স্পষ্ট ফলাফল এমনকি গবেষকদেরও বিস্ময়ের কারণ হয়েছিল৷ যে সব শিশু-কিশোর সপ্তাহে তিনবার অথবা তার বেশি ফাস্টফুড খায়, তাদের মধ্যে হাঁপানি রোগ, হে ফিভার ও ত্বকে লাল দাগ বেশি করে দেখা যায়৷ যারা ফলমূল ও শাকসবজি খায়, তাদের মধ্যে এই সম্ভাবনা কম৷

খাদ্য বিশ্লেষণ করেও অ্যালার্জির উৎস সম্পর্কে ইঙ্গিত পাওয়া যায়৷ হ্যামবার্গার, আলু ভাজার মতো খাবারে যে ফ্যাটি অ্যাসিড থাকে, সেগুলিই সম্ভবত এর জন্য দায়ী৷ প্রো. গাব্রিয়েলে নাগেল বলেন, ‘‘বড় মাত্রায় ফ্যাট তৈরি করার সময় ট্রান্স ফ্যাটি অ্যাসিড সৃষ্টি হয়৷ ল্যাবে পরীক্ষায় তার প্রভাব শনাক্ত করা গেছে৷ খাদ্যের মধ্যে এনার্জি ডেনসিটিও আরেকটি কারণ৷ অর্থাৎ যে খাবারে সামগ্রিকভাবে উচ্চ মাত্রার ফ্যাট রয়েছে, সেগুলি হাঁপানি রোগ ও অ্যালার্জির লক্ষণ বাড়িয়ে দেয়৷”

অর্থাৎ সুস্থ খাদ্যাভ্যাস অ্যালার্জি এড়াতে সাহায্য করতে পারে৷ ডাক্তাররা একটি টিকাও তৈরি করার চেষ্টা করছেন৷ সেই লক্ষ্যে তারা উজ্জ্বল একটি সম্ভাবনার পথে এগোচ্ছেন৷


উন্নত জীবনের সন্ধানে, মানুষ আশ্রয় খুঁজছে, ইউরোপে

রোহিঙ্গাদের ফেরাতে বাংলাদেশ-মিয়ানমার বৈঠক শুরু


এ বিভাগের আরো খবর...

আইয়ুব বাচ্চুর মহানুভবতার গল্প বল্লেন আবু বকর সিদ্দিকী আইয়ুব বাচ্চুর মহানুভবতার গল্প বল্লেন আবু বকর সিদ্দিকী
অনলাইনে মনোনয়নপত্র দাখিলের সাথে সাথে ইভিএম ব্যবহার করা হবে অনলাইনে মনোনয়নপত্র দাখিলের সাথে সাথে ইভিএম ব্যবহার করা হবে
মায়ের পাশে চিরনিদ্রায় আইয়ুব বাচ্চু মায়ের পাশে চিরনিদ্রায় আইয়ুব বাচ্চু
নারায়ণগঞ্জে মহাসড়কের পাশে ৪ মৃতদেহ নারায়ণগঞ্জে মহাসড়কের পাশে ৪ মৃতদেহ
দ. আফ্রিকায় আগুনে পুড়ে ৪ বাংলাদেশির মৃত্যু দ. আফ্রিকায় আগুনে পুড়ে ৪ বাংলাদেশির মৃত্যু
আইয়ুব বাচ্চুকে শেষবারের মতো দেখতে মাদারবাড়িতে হাজার হাজার ভক্ত-অনুরাগী আইয়ুব বাচ্চুকে শেষবারের মতো দেখতে মাদারবাড়িতে হাজার হাজার ভক্ত-অনুরাগী
মায়ের কবরের পাশে দাফন করা হবে মায়ের কবরের পাশে দাফন করা হবে
মোহাম্মদপুরে ওয়ালটনের শোরুমে আগুন মোহাম্মদপুরে ওয়ালটনের শোরুমে আগুন
নদীশাসনের দুর্বলতা বিঘ্নিত হচ্ছে নৌপথে চলাচল নদীশাসনের দুর্বলতা বিঘ্নিত হচ্ছে নৌপথে চলাচল
বেরোবির গবেষণা ইনস্টিটিউটের নামে ২ ট্রেড লাইসেন্স বেরোবির গবেষণা ইনস্টিটিউটের নামে ২ ট্রেড লাইসেন্স

সর্বাধিক পঠিত

আমেরিকা চুক্তি থেকে বেরিয়ে আসলে পাল্টা ব্যবস্থা নেবে- মস্কো আমেরিকা চুক্তি থেকে বেরিয়ে আসলে পাল্টা ব্যবস্থা নেবে- মস্কো
মার্কিন জোটের যুদ্ধাপরাধে ব্যবস্থা নিন- জাতিসংঘকে সিরিয়া মার্কিন জোটের যুদ্ধাপরাধে ব্যবস্থা নিন- জাতিসংঘকে সিরিয়া
নিরাপত্তা পরিষদের নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করুন: ইয়েমেন নিরাপত্তা পরিষদের নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করুন: ইয়েমেন
ইরান থেকে তেল আমদানি বাড়াচ্ছে- তুরস্ক ইরান থেকে তেল আমদানি বাড়াচ্ছে- তুরস্ক
সিলেটে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশের অনুমতি সিলেটে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশের অনুমতি
দশম সংসদের শেষ অধিবেশন শুরু, চলবে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত দশম সংসদের শেষ অধিবেশন শুরু, চলবে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত
প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন আগামীকাল প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন আগামীকাল
চীনের অ্যালুমিনিয়াম রফতানি ৩৭% বেড়েছে চীনের অ্যালুমিনিয়াম রফতানি ৩৭% বেড়েছে
চোখ হারানো প্রত্যেককে ১০ লাখ করে ক্ষতিপূরণ দেয়ার নির্দেশ চোখ হারানো প্রত্যেককে ১০ লাখ করে ক্ষতিপূরণ দেয়ার নির্দেশ
স্টিয়ারিং ও সমন্বয়ক কমিটির যৌথসভায় জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট স্টিয়ারিং ও সমন্বয়ক কমিটির যৌথসভায় জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট
নদীশাসনের দুর্বলতা বিঘ্নিত হচ্ছে নৌপথে চলাচল
শিল্পে গ্যাস সংযোগ না দেওয়া, আর্থিক ক্ষতির মুখে-সরকার
গুদামের খাদ্যদ্রব্য পাচারে-সক্রিয় চোর সিন্ডিকেট
প্যারিস জলবায়ু চুক্তি ৩০০ পৃষ্ঠার খসড়া অনুমোদন করেছে-ব্যাংকক
সড়ক শৃঙ্খলা-মূল সমস্যাটা রাজনীতিতেই: কাদের
বিশ্বের ভয়াবহ আবহাওয়া নিয়ে প্রযুক্তিগত আলোচনা চলছে
রোহিঙ্গা প্রশ্নে চীন-রাশিয়াকে-জাতিসংঘের কড়া হুুশিয়ারি!
খালেদা জিয়ার জামিন বহাল
বিমসটেক শীর্ষ সম্মেলনে নেপালে প্রধানমন্ত্রী
আওয়ামী লীগের জন্য যা পেয়েছি তা ভয়ংকর!