ঢাকা, এপ্রিল ২৬, ২০১৮, ১২ বৈশাখ ১৪২৫
---
---
bbc24news.com
প্রথম পাতা » খেলাধুলা » কাজের মেয়ে থেকে, বাংলাদেশের চ্যাম্পিয়ন অধিনায়ক
সোমবার ● ২৫ ডিসেম্বর ২০১৭, ১২ বৈশাখ ১৪২৫
Email this News Print Friendly Version

কাজের মেয়ে থেকে, বাংলাদেশের চ্যাম্পিয়ন অধিনায়ক

---বিবিসি২৪নিউজ,বাবা মারা গেছে,স্বামীকে হারিয়ে জীবনের উত্তাল সাগরে নাও ভাসিয়েছেন মা এনাতো মান্দ্রা। সহায়-সম্বল বলে কিছু নেই,গৃহপরিচারিকার কাজ করে, আর যা-ই হোক, ছেলেমেয়েদের মুখে তো তুলে দিতে হবে দুমুঠো ভাত। সেই মেয়েটি আজকের বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৫ দলের অধিনায়ক মারিয়া মান্ডা। যার হাত ধরেই ভারতকে হারিয়ে আজ অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হলো বাংলাদেশ। কত বাধা পাড়ি দিয়ে এসে নিজেকে একজন চ্যাম্পিয়ন হিসেবে তৈরি করা যায়, তা মারিয়ার জীবনগল্পের প্রতিটি প্যারাতে লেখা।

বাবা বীরেন্দ্র মারাকের কথা জিজ্ঞাসা করা হলে হা করে তাকিয়ে থাকে মারিয়া। বাবার কোনো স্মৃতিই যে নেই তার। মা এনাতো মান্দ্রাই একসঙ্গে তার ‌‘বাবা ও মা’। মারিয়াদের তিন বোন ও একমাত্র ভাইকে মানুষ করতে কী অমানুষিক কষ্টই না করেছেন এনাতো। বাড়ি বাড়ি গিয়ে গৃহপরিচারিকার কাজ করতেন, তা দিয়েই মারিয়াদের চার ভাইবোনের জুটত দুমুঠো ভাত। অনেক দিন তো মা ও বড় বোনের সঙ্গে কাজে হাত লাগাতে হয়েছে মারিয়াকেও। না হলে যে বাড়ির চুলোয় আগুন জ্বলে না। বাফুফের এস্টো টার্ফে সেই গল্প শুনতে গিয়ে আবিষ্কৃত হলো এক অচেনা মারিয়া; যে মারিয়ার ফুটবলের বাইরের জীবনটা কষ্টের কালো ডায়েরি।

নিজ উঠানে চলছে অনুশীলন। ফুটবলটাই মারিয়ার জীবনে ফুটিয়েছে হাসি। ২০১১ সালে বঙ্গমাতা টুর্নামেন্ট উপলক্ষে খালি পায়ে ফুটবলে হাতে খড়ি হয় ময়মনসিংহ জেলার মেয়েটির। ২০১৩ সালে ধোবাউড়ার বিখ্যাত কলসিন্দুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম চ্যাম্পিয়ন হওয়া দলের সদস্য। এর পরেই তার পায়ে ওঠে বুট। আর বদলাতে থাকে মারিয়া মান্ডার পৃথিবী। হ্যাঁ, তখনো কিন্তু মারিয়াকে পাশের বাড়িতে গিয়ে মায়ের সঙ্গে গৃহপরিচারিকার কাজে হাত লাগাতে হতো।

২০১৪ সালে অনূর্ধ্ব-১৪ জাতীয় দলে ডাক পায় মারিয়া। তাজিকিস্তানে অনুষ্ঠিত এএফসি অনূর্ধ্ব-১৪ আঞ্চলিক চ্যাম্পিয়নশিপে তার সহ-অধিনায়কত্বেই চ্যাম্পিয়ন হয় বাংলাদেশ। গত বছর ঢাকায় এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ বাছাইপর্বে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন দলের সহ-অধিনায়কও ছিল মারিয়া। এরপরে জায়গা করে নেয় মূল জাতীয় দলে। শিলিগুড়িতে অনুষ্ঠিত সাফে বাংলাদেশের রানার্সআপ হওয়ার পেছনে ছোট মারিয়ার অবদান কম নয়। যার ফল স্বরূপ অনূর্ধ্ব-১৫ সাফে তার বাহুতেই বেঁধে দেওয়া হয় বাংলাদেশের আর্মব্যান্ড। এরপরের গল্পটা তো পুরো বাংলাদেশ দেখল। মারিয়ার হাত ধরে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হলো বাংলাদেশ। দক্ষিণ এশিয়ার ফুটবলে সাম্রাজ্য গেড়ে বসা ভারতকে একই টুর্নামেন্টে হারাল দুই-দুইবার।

মাঠে অধিনায়ক মারিয়ার খেলার ধরনটা পাক্কা রাঁধুনির মতো। তাকে কিছুটা মেলানো যায় স্পেন ও বার্সেলোনার মিডফিল্ডার সার্জিও বুসকেটসের সঙ্গে। পা থেকে বল কেড়ে নিতে হবে, সেখানে মারিয়া। আবার মাঝমাঠে বল দখলে রাখতে হবে, সেখানেও আছে খর্বাকৃতির মেয়েটি। বল পায়ে নাও, প্রয়োজন হলে হোল্ড কর, সুযোগ হলে দ্রুত উইংয়ে ভালো একটি পাস দাও। এক কথায় সাধারণ ফুটবল। কিন্তু কজনই-বা পারে এভাবে খেলতে? মারিয়া মান্ডা এত সহজভাবে দারুণ খেলতে পারে বলেই নাকি তাকে অধিনায়ক হিসেবে বেছে নিয়েছেন বাংলাদেশ কোচ গোলাম রব্বানি, ‘মারিয়া সিনিয়র ও বয়সভিত্তিক সব দলেরই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়। পায়ে বল রাখার ক্ষমতা ভালো। যেকোনো পরিস্থিতিতেই ভালো পাস দিতে পারে। মাঠের বাইরেও দারুণ ঠান্ডা মেজাজের, কোনো ঝামেলায় নেই।’
সতীর্থ সবাই মজে থাকে বাড়ির ছোট মেয়ে মারিয়ার গুণে। দরিদ্র ঘরে জন্ম, পরিবারের জন্য গৃহপরিচারিকার কাজে সহযোগিতা, তবুও সুশিক্ষা থেকে বিচ্যুত হয়নি মারিয়া। কত বাধা পেরিয়ে এখন বাংলাদেশের চ্যাম্পিয়ন অধিনায়ক।


প্রাথমিক শিক্ষা অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত কবে শেষ হচ্ছে?

বিশ্বে আজ পালিত হচ্ছে বড় দিন


এ বিভাগের আরো খবর...

ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় ফিরেছে সূচক! ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় ফিরেছে সূচক!
আগামীকাল সরকারি সফরে অষ্ট্রেলিয়া যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী! আগামীকাল সরকারি সফরে অষ্ট্রেলিয়া যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী!
৩০টি বিএমডব্লিউ গাড়ি আমদানি করেছে সরকার! ৩০টি বিএমডব্লিউ গাড়ি আমদানি করেছে সরকার!
খুলনা সিটির ৩১ দফা নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা! খুলনা সিটির ৩১ দফা নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা!
ডিআইজি মিজানুর রহমানকে দুদকের তলব! ডিআইজি মিজানুর রহমানকে দুদকের তলব!
১৭ মে খালেদা জিয়ার জামিনের শুনানি! ১৭ মে খালেদা জিয়ার জামিনের শুনানি!
ভোটার তালিকায়ও নাম নেই তারেক রহমানের! ভোটার তালিকায়ও নাম নেই তারেক রহমানের!
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে বিশ্ব ডিএন এ দিবস পালিত! রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে বিশ্ব ডিএন এ দিবস পালিত!
রাজ‌নৈ‌তিক দল‌কে ঐক্যবদ্ধভা‌বে আন্দোলনের আহ্বান:ফখরুল রাজ‌নৈ‌তিক দল‌কে ঐক্যবদ্ধভা‌বে আন্দোলনের আহ্বান:ফখরুল
সব রেকর্ড ভেঙে সর্বোচ্চ পরিমাণ বিদ্যুৎ উৎপাদন! সব রেকর্ড ভেঙে সর্বোচ্চ পরিমাণ বিদ্যুৎ উৎপাদন!

সর্বাধিক পঠিত

এশিয়ায় সবচেয়ে পিছিয়ে বাংলাদেশ এশিয়ায় সবচেয়ে পিছিয়ে বাংলাদেশ
হুমকি দিয়ে লাভ নেই, আ’ লীগ ভয় পায় না হুমকি দিয়ে লাভ নেই, আ’ লীগ ভয় পায় না
ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় ফিরেছে সূচক! ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় ফিরেছে সূচক!
মুক্তি পেল ‘ভীর দি ওয়েডিং’-এর ট্রেলর! মুক্তি পেল ‘ভীর দি ওয়েডিং’-এর ট্রেলর!
কাস্টিং কাউচের প্রশ্নে হেসে খুন হলেন রণবীর! কাস্টিং কাউচের প্রশ্নে হেসে খুন হলেন রণবীর!
রোহিঙ্গা গণহত্যার তথ্য দেয়ায় পুলিশের বেতন বন্ধ রোহিঙ্গা গণহত্যার তথ্য দেয়ায় পুলিশের বেতন বন্ধ
গোলাম নবীকে গুলি চালিয়ে হত্যা! গোলাম নবীকে গুলি চালিয়ে হত্যা!
আগামীকাল সরকারি সফরে অষ্ট্রেলিয়া যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী! আগামীকাল সরকারি সফরে অষ্ট্রেলিয়া যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী!
মোদি-শি বৈঠকের বিষয়ে পাকিস্তানকে আশ্বস্ত করেছে চীন! মোদি-শি বৈঠকের বিষয়ে পাকিস্তানকে আশ্বস্ত করেছে চীন!
পশ্চিমবঙ্গের পঞ্চায়েত নির্বাচন নিয়ে হস্তক্ষেপ করবে না হাইকোর্ট! পশ্চিমবঙ্গের পঞ্চায়েত নির্বাচন নিয়ে হস্তক্ষেপ করবে না হাইকোর্ট!
অবর্ণনীয় দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে রাজধানীবাসীকে
বিড়ি শিল্পে তামাকের ভয়াবহতা আর শিশুশ্রম বাড়ছে
প্লাস্টিক বিপর্যয়ের মুখে বাংলাদেশ, খাবারে ঢুকে পড়ছে প্লাস্টিক !
শিক্ষাকে কখনো পণ্য হিসেবে বিবেচনা করা উচিত নয়
রেল যোগাযোগ ঝুঁকিমুক্ত করার পদক্ষেপ নিন
এডিবির পর্যবেক্ষণ বলছে-বাংলাদেশের অর্থনীতির ভিত্তি সুদৃঢ় করতে হবে
কাশ্মীরের ধর্ষণ ও হত্যা দিল্লিতে পৌঁছায়িন কেন?
রোহিঙ্গা পাঁচ সদস্যের একটি পরিবারকে ফিরিয়ে নিয়েছে: মিয়ানমার
জলবায়ু পরিবর্তনে বন্যা এবং সাইক্লোনের প্রবণতা বেড়ে যাবে
কোটা আন্দোলনকারীদের জয় হলেও মেধাবীরা কতটুকু সুযোগ পাবে?