ঢাকা, জুন ২০, ২০১৮, ৬ আষাঢ় ১৪২৫
---
---
bbc24news.com
প্রথম পাতা » আইন-আদালত » হামলাকারীদের মুলোৎপাটন করা হবে: আইজিপি
সোমবার ● ৫ মার্চ ২০১৮, ৬ আষাঢ় ১৪২৫
Email this News Print Friendly Version

হামলাকারীদের মুলোৎপাটন করা হবে: আইজিপি

হামলাকারীদের মুলোৎপাটন করা হবে: আইজিপিবিবিসি২৪নিউজ,নিজস্ব প্রতিবেদক:জাফর ইকবালের উপর হামলাকারীদের মুলোৎপাটন করা হবে,পুলিশের ইন্সপেক্টর জেনারেল (আইজিপি) ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী জানিয়েছেন। এবং এর গভীরে যারা জড়িত তাদেরকে জাতির সামনে তুলে ধরা হবে। আজ জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে ঢাকা মেট্রোপলিটনের লালবাগ বিভাগ ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের যৌথ উদ্যোগে মাদক ও সন্ত্রাস বিরোধী ছাত্রসমাবেশ ও কনসার্ট অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।
তিনি আরো বলেন, ‘জাফর ইকবাল আমাদের পুলিশ পরিবারের সন্তান। তার উপর হামলার তীব্র নিন্দা জানাই। ঘটনার শুরু থেকে পুলিশ এটি গুরুত্বের সাথে পর্যবেক্ষন করছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাফর ইকবালের সার্বক্ষনিক চিকিৎসার বিষয়ে খোঁজ খবর নিচ্ছেন। জাফর ইকবালের উপর হামলার ঘটনায় তদন্ত শুরু হয়েছে। হামলাকারী অসুস্থ বলে তাকে জিজ্ঞাসাবাদের সুযোগ পাওয়া যায়নি। হামলাকারী সুস্থ হলে তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। এছাড়া হামলাকারীদের মুলোৎপাটন এবং এর গভীরে যারা জড়িত তাদেরকে জাতির সামনে তুলে ধরা হবে।

মাদক প্রতিরোধ সম্পর্কে তিনি বলেন, মাদক একটি সামাজিক সমস্যা। আর সামাজিকভাবেই এই সমস্যার মোকাবেলা করতে হবে। জনগণকে একসাথে নিয়ে সামাজিক আন্দোলনের মাধ্যমেই সমাজ থেকে মাদক নির্মূল করতে হবে। পারিবারিক মূল্যবোধ একটি মানুষের ব্যক্তিত্বের পরিচয় বহন করে। মাদক সমস্যা নিরাময়ে পারিবার, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, সমাজ ও ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান ব্যাপক ভূমিকা রাখতে পারে।পুলিশ সদস্যদের মাদকের সাথে সংশ্লিষ্টতার বিষয়ে তিনি বলেন, যদি কোন পুলিশ সদস্য মাদকের সাথে সাথে সম্পৃক্ত হয় আর এটা যদি প্রমান হয় তাহলে তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।ডিএমপি কমিশনার মোঃ আছাদুজ্জামান মিয়া বলেন, বর্তমানে বাংলাদেশে আমাদের অন্যতম জাতীয় শত্রু মাদক, আর দ্বিতীয়টি হচ্ছে জঙ্গিবাদ বা সন্ত্রাস। এগুলো নির্মূলে আমাদের দ্বিতীয় বারের মত মুক্তিযুদ্ধের মতো আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে। সমাজের সকলকে এসকল ব্যাধি নির্মূলে এগিয়ে আসতে হবে।

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক ড. মীজানুর রহমান-এর সভাপতিত্বে ও লালবাগ জোনের ডিসি মো. ইব্রাহিম খানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন জবি শিক্ষক সমিতির সভাপতি আধ্যাপক একেএম মনিরুজ্জামান, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল বাকী, জবি শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি তরিকুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক জয়নাল আবেদিন রাসেল।

সমাবেশ শেষে ‘জলের গান’ ব্যান্ড দলের পরিবেশনায় কনসার্ট পরিবেশিত হয়। এছাড়াও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গীত বিভাগের শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে গান পরিবেশিত হয়।


৮ মার্চ ভারত যাচ্ছেন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ

বাংলাদেশে নারী দিবসের গুরুত্ব অত্যধিক


এ বিভাগের আরো খবর...

অভিবাসী শিশুদের সমালোচনার মুখোমুখি- ট্রাম্প অভিবাসী শিশুদের সমালোচনার মুখোমুখি- ট্রাম্প
শিগগিরই উ. কোরিয়া সফর করবেন- পম্পেও শিগগিরই উ. কোরিয়া সফর করবেন- পম্পেও
গাজীপুরে প্রধান নির্বাচন কমিশনার গাজীপুরে প্রধান নির্বাচন কমিশনার
মৌলভীবাজারে বিশুদ্ধ পানির জন্য হাহাকার! মৌলভীবাজারে বিশুদ্ধ পানির জন্য হাহাকার!
ময়মনসিংহে মাইক্রোবাস-সিএনজি সংঘর্ষে নিহত ৩ ময়মনসিংহে মাইক্রোবাস-সিএনজি সংঘর্ষে নিহত ৩
দর্শকের কান্না দেখে আমিও কেঁদেছি? দর্শকের কান্না দেখে আমিও কেঁদেছি?
মালয়েশিয়ার রেমিটেন্স প্রেরণে শীর্ষ অবস্থানে বাংলাদেশ মালয়েশিয়ার রেমিটেন্স প্রেরণে শীর্ষ অবস্থানে বাংলাদেশ
প্রচারণায় মুখরিত গাজীপুর নগরী প্রচারণায় মুখরিত গাজীপুর নগরী
আবারও কমলাপুরে রাজধানীমুখী মানুষের ভিড় আবারও কমলাপুরে রাজধানীমুখী মানুষের ভিড়
বছরে ৭ কোটি মানুষ শরণার্থী হচ্ছে-ইইএনএইচসিআর বছরে ৭ কোটি মানুষ শরণার্থী হচ্ছে-ইইএনএইচসিআর

সর্বাধিক পঠিত

অভিবাসী শিশুদের সমালোচনার মুখোমুখি- ট্রাম্প অভিবাসী শিশুদের সমালোচনার মুখোমুখি- ট্রাম্প
শিগগিরই উ. কোরিয়া সফর করবেন- পম্পেও শিগগিরই উ. কোরিয়া সফর করবেন- পম্পেও
গাজীপুরে প্রধান নির্বাচন কমিশনার গাজীপুরে প্রধান নির্বাচন কমিশনার
মৌলভীবাজারে বিশুদ্ধ পানির জন্য হাহাকার! মৌলভীবাজারে বিশুদ্ধ পানির জন্য হাহাকার!
ময়মনসিংহে মাইক্রোবাস-সিএনজি সংঘর্ষে নিহত ৩ ময়মনসিংহে মাইক্রোবাস-সিএনজি সংঘর্ষে নিহত ৩
দর্শকের কান্না দেখে আমিও কেঁদেছি? দর্শকের কান্না দেখে আমিও কেঁদেছি?
মালয়েশিয়ার রেমিটেন্স প্রেরণে শীর্ষ অবস্থানে বাংলাদেশ মালয়েশিয়ার রেমিটেন্স প্রেরণে শীর্ষ অবস্থানে বাংলাদেশ
প্রচারণায় মুখরিত গাজীপুর নগরী প্রচারণায় মুখরিত গাজীপুর নগরী
আবারও কমলাপুরে রাজধানীমুখী মানুষের ভিড় আবারও কমলাপুরে রাজধানীমুখী মানুষের ভিড়
বছরে ৭ কোটি মানুষ শরণার্থী হচ্ছে-ইইএনএইচসিআর বছরে ৭ কোটি মানুষ শরণার্থী হচ্ছে-ইইএনএইচসিআর
প্রধানমন্ত্রীর বিমানে ত্রুটির মামলার প্রকৌশলীদের জামিন মঞ্জুর
কাঙ্খিত ফল পেতে হলে,ভেজালবিরোধী অভিযান চালু রাখতে হবে?
মাদকযুদ্ধে কেন হারবে বাংলাদেশ?
টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কের দুই ট্রাকের সংঘর্ষে নিহত ৩
ঈদযাত্রা নির্বিঘ্নে মহাসড়কে পদক্ষেপ নিন
হাইকোর্টে ১৮ অতিরিক্ত বিচারক নিয়োগ
বাংলাদেশে দু’কোটি মানুষ আর্সেনিকের ঝুঁকিতে?
প্রধানমন্ত্রীকে ২০৪১সাল পর্যন্ত ভারতের পূর্ণ সমর্থনের কারন কি?
‘মাদক ব্যবসার চেয়েও ক্রসফায়ার বড় অপরাধ?
অসহনীয় যানজট নিরসনে দ্রুত কার্যকর পদক্ষেপ নিন?