ঢাকা, ডিসেম্বর ১২, ২০১৮, ২৮ অগ্রহায়ন ১৪২৫
---
bbc24news.com
প্রথম পাতা » সম্পাদকীয় » মাদকের ছোবল কারাগারেও
রবিবার ● ১১ মার্চ ২০১৮, ২৮ অগ্রহায়ন ১৪২৫
Email this News Print Friendly Version

মাদকের ছোবল কারাগারেও

---এমডি জালাল:বিভিন্ন সময় কারা প্রশাসন, পুলিশ থেকে শুরু করে বিভিন্ন স্তরের দায়িত্বশীলদের বিরুদ্ধে মাদক ব্যবসায় সহায়তার অভিযোগ উঠেছে। ইয়াবাসহ নিষিদ্ধ মাদক ব্যবসা কতটা ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে, তা অনুমান করা যায় কারারক্ষী ও পুলিশের পাহারায় কারাগারে বসে খোদ হাজতির মাদক ব্যবসার খবর থেকে। শুধু তা-ই নয়, কারাগার ওই মাদক ব্যবসায়ীর জন্য স্বর্গরাজ্যে পরিণত হয়েছে বললেও অত্যুক্তি হবে না।

এমনকি চিহ্নিত ওই মাদক ব্যবসায়ী হাজতির সঙ্গে অবৈধভাবে তার স্ত্রীকেও হাসপাতালে রাখার সুযোগ দেয়া হয়েছে।আমরা মনে করি, ইয়াবা-মাদকের ভয়াবহ থাবা থেকে তরুণ সমাজকে বাঁচাতে এ ঘটনায় সংশ্লিষ্টদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেয়া উচিত। কারণ এটি কেবল অবৈধ ইয়াবা ব্যবসার প্রশ্নই নয়, এর সঙ্গে কারা প্রশাসন ও পুলিশ সদস্যদের দায়িত্বে অবহেলার বিষয়ও জড়িত।

বারবার এ ধরনের অভিযোগ আসায় কারাগার চিহ্নিত অপরাধীদের অপরাধের সাম্রাজ্য বিস্তার করার মাধ্যম হয়ে পড়েছে কিনা, এমন প্রশ্ন তোলাও অযৌক্তিক হবে না। কাজেই বিভিন্ন সময় মাদক ব্যবসায়ীদের ছেড়ে দেয়া, অভিযান চালানোর আগে গোপনে সংবাদ পৌঁছে দেয়াসহ অপরাধে সহযোগিতার মতো জঘন্য ঘটনায় কঠোর ব্যবস্থা নেয়ার বিকল্প নেই। কী ভয়াবহ বিষয়, ভাবা যায়! এ ঘটনা থেকে যে বিষয়টি স্পষ্ট তা হল, কিছু পুলিশ সদস্য ও কারারক্ষী অপরাধীদের প্রতি সহানুভূতিশীল। অথচ নিরপরাধ মানুষের অন্যায়ভাবে বছরের পর বছর জেলখাটার খবরও মাঝে মাঝে শিরোনাম হয়।

দুর্ভাগ্যের বিষয়, স্থানীয় রাজনৈতিক নেতাকর্মী, পুলিশ, এমনকি খোদ এমপির বিরুদ্ধেও ইয়াবা ব্যবসার অভিযোগ একাধিকবার উঠলেও কার্যকর কোনো ব্যবস্থা নেয়া হয়নি। এ কারণে কারাগারে বসেই মাদক ব্যবসা চালানোর মতো গুরুতর ঘটনা আমাদের দেখতে হয়েছে।

অথচ ইয়াবাসহ সর্বনাশা মাদকের ছোবলে বহু উচ্চবিত্ত পরিবার পর্যন্ত ধ্বংসের মুখে পড়েছে। ছেলেমেয়ে নির্বিশেষে সন্তানের মাদকসেবনের মাশুল চোখের পানি দিয়ে দিতে হচ্ছে সমাজে প্রতিষ্ঠিত অনেক বাবা-মাকে। এ অবস্থা থেকে উত্তরণে এবং তরুণ প্রজন্মকে রক্ষায় মাদকের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতর, পুলিশ প্রশাসন ও কারা কর্তৃপক্ষের কঠোর ভূমিকার বিকল্প নেই। সরকারের শীর্ষমহলকেও মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নিয়ে এগিয়ে আসতে হবে।


দ্বিতীয় বার বাবা হলেন সোহম

ছেলের নাম রাম বা আলেকজান্ডার রাখব না!


এ বিভাগের আরো খবর...

জলবায়ু পরিবর্তনে বিশ্বব্যাংক-আইএফসি ২২ বিলিয়ন ডলার দিবে জলবায়ু পরিবর্তনে বিশ্বব্যাংক-আইএফসি ২২ বিলিয়ন ডলার দিবে
জলবায়ু পরিবর্তনের যুদ্ধে নারীর অংশগ্রহণ করতে হবে-প্যাট্রিসিয়া জলবায়ু পরিবর্তনের যুদ্ধে নারীর অংশগ্রহণ করতে হবে-প্যাট্রিসিয়া
নির্বাচন কমিশনকে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড নিশ্চিত করতে হবে নির্বাচন কমিশনকে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড নিশ্চিত করতে হবে
বিএনপির দুটি আসনের পরিবর্তন বিএনপির দুটি আসনের পরিবর্তন
ভিকারুননিসার ছাত্রী-অরিত্রীর আত্মহত্যা-দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হওয়া উচিত! ভিকারুননিসার ছাত্রী-অরিত্রীর আত্মহত্যা-দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হওয়া উচিত!
কলেজ শিক্ষক আলী হোসেন হত্যা দুইজনের ত্যুদণ্ড কলেজ শিক্ষক আলী হোসেন হত্যা দুইজনের ত্যুদণ্ড
শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে লাগেজ চুরি ঘটনা আবারও বেড়ে গেছে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে লাগেজ চুরি ঘটনা আবারও বেড়ে গেছে
বাংলাদেশে দুর্নীতি নিয়ন্ত্রণ করতে হবে-এমসিসির মূল্যায়ন বাংলাদেশে দুর্নীতি নিয়ন্ত্রণ করতে হবে-এমসিসির মূল্যায়ন
নির্বাচনে সবার অংশগ্রহণ-গণতন্ত্রের জন্য ইতিবাচক নির্বাচনে সবার অংশগ্রহণ-গণতন্ত্রের জন্য ইতিবাচক
বাংলাদেশের রাজনৈতিতে সংলাপের কতটুকু গুরুত্ব পায়? বাংলাদেশের রাজনৈতিতে সংলাপের কতটুকু গুরুত্ব পায়?

সর্বাধিক পঠিত

অপরিশোধিত ইস্পাত উৎপাদনের পথে চীন অপরিশোধিত ইস্পাত উৎপাদনের পথে চীন
বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে শেখ হাসিনা
কিছুই করতে পারছেন না বলেই সিইসি অসহায় ও বিব্রত-  সেলিমা রহমান কিছুই করতে পারছেন না বলেই সিইসি অসহায় ও বিব্রত- সেলিমা রহমান
২ কর্মীকে খুন করেছে বিএনপি , প্রমাণও আছে- কাদের ২ কর্মীকে খুন করেছে বিএনপি , প্রমাণও আছে- কাদের
ভোটারদের মন জয় করতে নেমেছি: মির্জা আব্বাস ভোটারদের মন জয় করতে নেমেছি: মির্জা আব্বাস
১৮ বছরের সর্বোচ্চে পাম অয়েল মজুদ - মালয়েশিয়া ১৮ বছরের সর্বোচ্চে পাম অয়েল মজুদ - মালয়েশিয়া
১৬৩ দিনে  ৫৯ লাখ টন সয়াবিন আমদানি ইইউর ১৬৩ দিনে ৫৯ লাখ টন সয়াবিন আমদানি ইইউর
যতই নির্যাতন করুক মাঠ ছাড়ব না- মওদুদ যতই নির্যাতন করুক মাঠ ছাড়ব না- মওদুদ
নাজিবের বিরুদ্ধে নতুন দুর্নীতির মামলা নাজিবের বিরুদ্ধে নতুন দুর্নীতির মামলা
আইপিওর অর্থ অনিয়ম : প্যাসিফিক এমডিকে কোম্পানির অর্থ ফেরত দেয়ার নির্দেশ আইপিওর অর্থ অনিয়ম : প্যাসিফিক এমডিকে কোম্পানির অর্থ ফেরত দেয়ার নির্দেশ
জলবায়ু পরিবর্তনে বিশ্বব্যাংক-আইএফসি ২২ বিলিয়ন ডলার দিবে
জলবায়ু পরিবর্তনের যুদ্ধে নারীর অংশগ্রহণ করতে হবে-প্যাট্রিসিয়া
বিএনপির দুটি আসনের পরিবর্তন
কলেজ শিক্ষক আলী হোসেন হত্যা দুইজনের ত্যুদণ্ড
নির্বাচনে সবার অংশগ্রহণ-গণতন্ত্রের জন্য ইতিবাচক
বহুল প্রত্যাশিত সংলাপে কি ছিল?
একটি অর্থবহ ও সফল সংলাপের প্রত্যাশা করছি
শেখ হাসিনা বার্ন ইন্সটিটিউটের: প্রত্যাশিত স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত হবে কি?
নদীশাসনের দুর্বলতা বিঘ্নিত হচ্ছে নৌপথে চলাচল
শিল্পে গ্যাস সংযোগ না দেওয়া, আর্থিক ক্ষতির মুখে-সরকার