ঢাকা, জুন ২০, ২০১৮, ৬ আষাঢ় ১৪২৫
---
---
bbc24news.com
প্রথম পাতা » সম্পাদকীয় » মাদকের ছোবল কারাগারেও
রবিবার ● ১১ মার্চ ২০১৮, ৬ আষাঢ় ১৪২৫
Email this News Print Friendly Version

মাদকের ছোবল কারাগারেও

---এমডি জালাল:বিভিন্ন সময় কারা প্রশাসন, পুলিশ থেকে শুরু করে বিভিন্ন স্তরের দায়িত্বশীলদের বিরুদ্ধে মাদক ব্যবসায় সহায়তার অভিযোগ উঠেছে। ইয়াবাসহ নিষিদ্ধ মাদক ব্যবসা কতটা ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে, তা অনুমান করা যায় কারারক্ষী ও পুলিশের পাহারায় কারাগারে বসে খোদ হাজতির মাদক ব্যবসার খবর থেকে। শুধু তা-ই নয়, কারাগার ওই মাদক ব্যবসায়ীর জন্য স্বর্গরাজ্যে পরিণত হয়েছে বললেও অত্যুক্তি হবে না।

এমনকি চিহ্নিত ওই মাদক ব্যবসায়ী হাজতির সঙ্গে অবৈধভাবে তার স্ত্রীকেও হাসপাতালে রাখার সুযোগ দেয়া হয়েছে।আমরা মনে করি, ইয়াবা-মাদকের ভয়াবহ থাবা থেকে তরুণ সমাজকে বাঁচাতে এ ঘটনায় সংশ্লিষ্টদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেয়া উচিত। কারণ এটি কেবল অবৈধ ইয়াবা ব্যবসার প্রশ্নই নয়, এর সঙ্গে কারা প্রশাসন ও পুলিশ সদস্যদের দায়িত্বে অবহেলার বিষয়ও জড়িত।

বারবার এ ধরনের অভিযোগ আসায় কারাগার চিহ্নিত অপরাধীদের অপরাধের সাম্রাজ্য বিস্তার করার মাধ্যম হয়ে পড়েছে কিনা, এমন প্রশ্ন তোলাও অযৌক্তিক হবে না। কাজেই বিভিন্ন সময় মাদক ব্যবসায়ীদের ছেড়ে দেয়া, অভিযান চালানোর আগে গোপনে সংবাদ পৌঁছে দেয়াসহ অপরাধে সহযোগিতার মতো জঘন্য ঘটনায় কঠোর ব্যবস্থা নেয়ার বিকল্প নেই। কী ভয়াবহ বিষয়, ভাবা যায়! এ ঘটনা থেকে যে বিষয়টি স্পষ্ট তা হল, কিছু পুলিশ সদস্য ও কারারক্ষী অপরাধীদের প্রতি সহানুভূতিশীল। অথচ নিরপরাধ মানুষের অন্যায়ভাবে বছরের পর বছর জেলখাটার খবরও মাঝে মাঝে শিরোনাম হয়।

দুর্ভাগ্যের বিষয়, স্থানীয় রাজনৈতিক নেতাকর্মী, পুলিশ, এমনকি খোদ এমপির বিরুদ্ধেও ইয়াবা ব্যবসার অভিযোগ একাধিকবার উঠলেও কার্যকর কোনো ব্যবস্থা নেয়া হয়নি। এ কারণে কারাগারে বসেই মাদক ব্যবসা চালানোর মতো গুরুতর ঘটনা আমাদের দেখতে হয়েছে।

অথচ ইয়াবাসহ সর্বনাশা মাদকের ছোবলে বহু উচ্চবিত্ত পরিবার পর্যন্ত ধ্বংসের মুখে পড়েছে। ছেলেমেয়ে নির্বিশেষে সন্তানের মাদকসেবনের মাশুল চোখের পানি দিয়ে দিতে হচ্ছে সমাজে প্রতিষ্ঠিত অনেক বাবা-মাকে। এ অবস্থা থেকে উত্তরণে এবং তরুণ প্রজন্মকে রক্ষায় মাদকের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতর, পুলিশ প্রশাসন ও কারা কর্তৃপক্ষের কঠোর ভূমিকার বিকল্প নেই। সরকারের শীর্ষমহলকেও মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নিয়ে এগিয়ে আসতে হবে।


দ্বিতীয় বার বাবা হলেন সোহম

ছেলের নাম রাম বা আলেকজান্ডার রাখব না!


এ বিভাগের আরো খবর...

প্রধানমন্ত্রীর বিমানে ত্রুটির মামলার প্রকৌশলীদের জামিন মঞ্জুর প্রধানমন্ত্রীর বিমানে ত্রুটির মামলার প্রকৌশলীদের জামিন মঞ্জুর
কাঙ্খিত ফল পেতে হলে,ভেজালবিরোধী অভিযান চালু রাখতে হবে? কাঙ্খিত ফল পেতে হলে,ভেজালবিরোধী অভিযান চালু রাখতে হবে?
মাদকযুদ্ধে কেন হারবে বাংলাদেশ? মাদকযুদ্ধে কেন হারবে বাংলাদেশ?
টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কের দুই ট্রাকের সংঘর্ষে নিহত ৩ টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কের দুই ট্রাকের সংঘর্ষে নিহত ৩
ঈদযাত্রা নির্বিঘ্নে মহাসড়কে পদক্ষেপ নিন ঈদযাত্রা নির্বিঘ্নে মহাসড়কে পদক্ষেপ নিন
হাইকোর্টে ১৮ অতিরিক্ত বিচারক নিয়োগ হাইকোর্টে ১৮ অতিরিক্ত বিচারক নিয়োগ
বাংলাদেশে দু’কোটি মানুষ আর্সেনিকের ঝুঁকিতে? বাংলাদেশে দু’কোটি মানুষ আর্সেনিকের ঝুঁকিতে?
প্রধানমন্ত্রীকে ২০৪১সাল পর্যন্ত ভারতের পূর্ণ সমর্থনের কারন কি? প্রধানমন্ত্রীকে ২০৪১সাল পর্যন্ত ভারতের পূর্ণ সমর্থনের কারন কি?
‘মাদক ব্যবসার চেয়েও ক্রসফায়ার বড় অপরাধ? ‘মাদক ব্যবসার চেয়েও ক্রসফায়ার বড় অপরাধ?
অসহনীয় যানজট নিরসনে দ্রুত কার্যকর পদক্ষেপ নিন? অসহনীয় যানজট নিরসনে দ্রুত কার্যকর পদক্ষেপ নিন?

সর্বাধিক পঠিত

অভিবাসী শিশুদের সমালোচনার মুখোমুখি- ট্রাম্প অভিবাসী শিশুদের সমালোচনার মুখোমুখি- ট্রাম্প
শিগগিরই উ. কোরিয়া সফর করবেন- পম্পেও শিগগিরই উ. কোরিয়া সফর করবেন- পম্পেও
গাজীপুরে প্রধান নির্বাচন কমিশনার গাজীপুরে প্রধান নির্বাচন কমিশনার
মৌলভীবাজারে বিশুদ্ধ পানির জন্য হাহাকার! মৌলভীবাজারে বিশুদ্ধ পানির জন্য হাহাকার!
ময়মনসিংহে মাইক্রোবাস-সিএনজি সংঘর্ষে নিহত ৩ ময়মনসিংহে মাইক্রোবাস-সিএনজি সংঘর্ষে নিহত ৩
দর্শকের কান্না দেখে আমিও কেঁদেছি? দর্শকের কান্না দেখে আমিও কেঁদেছি?
মালয়েশিয়ার রেমিটেন্স প্রেরণে শীর্ষ অবস্থানে বাংলাদেশ মালয়েশিয়ার রেমিটেন্স প্রেরণে শীর্ষ অবস্থানে বাংলাদেশ
প্রচারণায় মুখরিত গাজীপুর নগরী প্রচারণায় মুখরিত গাজীপুর নগরী
আবারও কমলাপুরে রাজধানীমুখী মানুষের ভিড় আবারও কমলাপুরে রাজধানীমুখী মানুষের ভিড়
বছরে ৭ কোটি মানুষ শরণার্থী হচ্ছে-ইইএনএইচসিআর বছরে ৭ কোটি মানুষ শরণার্থী হচ্ছে-ইইএনএইচসিআর
প্রধানমন্ত্রীর বিমানে ত্রুটির মামলার প্রকৌশলীদের জামিন মঞ্জুর
কাঙ্খিত ফল পেতে হলে,ভেজালবিরোধী অভিযান চালু রাখতে হবে?
মাদকযুদ্ধে কেন হারবে বাংলাদেশ?
টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কের দুই ট্রাকের সংঘর্ষে নিহত ৩
ঈদযাত্রা নির্বিঘ্নে মহাসড়কে পদক্ষেপ নিন
হাইকোর্টে ১৮ অতিরিক্ত বিচারক নিয়োগ
বাংলাদেশে দু’কোটি মানুষ আর্সেনিকের ঝুঁকিতে?
প্রধানমন্ত্রীকে ২০৪১সাল পর্যন্ত ভারতের পূর্ণ সমর্থনের কারন কি?
‘মাদক ব্যবসার চেয়েও ক্রসফায়ার বড় অপরাধ?
অসহনীয় যানজট নিরসনে দ্রুত কার্যকর পদক্ষেপ নিন?