ঢাকা, জুলাই ১৬, ২০১৮, ৩১ আষাঢ় ১৪২৫
---
---
bbc24news.com
প্রথম পাতা » সম্পাদকীয় » মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন- আমলে নিন?
বুধবার ● ২৭ জুন ২০১৮, ৩১ আষাঢ় ১৪২৫
Email this News Print Friendly Version

মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন- আমলে নিন?

---এম ডি জালাল: ২০১৫ সালের নভেম্বরে মানি লন্ডারিং আইন সংশোধন করে তদন্তকারী সংস্থা হিসেবে দুদকের পাশাপাশি সিআইডি, জাতীয় রাজস্ব বোর্ড, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতর ও সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনকে দায়িত্ব দেয়া হলেও বিধির অভাবে সংস্থাগুলোর কার্যক্রম বাধাগ্রস্ত হচ্ছিল।কিন্ত দেরিতে হলেও সরকার ‘মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ বিধিমালা ২০১৮’ প্রণয়নের উদ্যোগ নিয়েছে, এটি স্বস্তিদায়ক। সরকারের প্রস্তাবিত বিধিমালায় সুনির্দিষ্টভাবে ২১ জায়গায় সংশোধনের প্রস্তাব দিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। এ প্রেক্ষাপটে বাংলাদেশ ব্যাংক কর্তৃক মানি লন্ডারিং আইনের একটি খসড়া বিধিমালা প্রস্তুতের পর অর্থ মন্ত্রণালয়ের ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগ এপ্রিলে দুদক, সিআইডি, এনবিআর ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরসহ অংশীজনের মতামত চাইলে দুদক আনুষ্ঠানিকভাবে খসড়া বিধিমালায় নিজস্ব অভিমত তুলে ধরে, যা আমলে নেয়া উচিত বলে আমরা মনে করি।উদ্বেগের বিষয় হল, বহুল আলোচিত পানামা ও প্যারাডাইস পেপার্সসহ মালয়েশিয়া, লন্ডন, সিঙ্গাপুর, কানাডা, যুক্তরাষ্ট্র, অস্ট্রেলিয়া, দুবাইসহ বিভিন্ন দেশে প্রচুর বাংলাদেশি বাড়ি-ফ্ল্যাটসহ বিভিন্ন ব্যবসা-বাণিজ্যে হাজার হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ করেছেন।

পুঁজি পাচারের ঘটনা ঘটে মূলত সঞ্চয় ও বিনিয়োগের মধ্যে ভারসাম্যহীনতা সৃষ্টির পরিপ্রেক্ষিতে। আশঙ্কার বিষয় হল, দেশে সঞ্চয় বাড়লেও বিনিয়োগ বাড়ছে না। এছাড়া টাকা পাচারের আরেকটি বড় কারণ হল দুর্নীতি। দুর্নীতি বেড়েছে বলেই অর্থ পাচারের হারও দিন দিন বাড়ছে।
এতদিন আইনে শুধু ‘ঘুষ দুর্নীতি’ শিরোনামে একটি অপরাধের তদন্তের এখতিয়ার দেয়ায় দুদক অর্থ পাচারের বিরুদ্ধে শক্ত কোনো ব্যবস্থা নিতে পারেনি। অন্যদিকে সিআইডি ও এনবিআরসহ চারটি সংস্থার তদন্ত শেষে অর্থ পাচারসংক্রান্ত অপরাধের মামলার চার্জশিট অনুমোদনকারী কর্তৃপক্ষ কে হবে- সেটাও নির্ধারিত ছিল না।

এ বাস্তবতায় সরকার ‘মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ বিধিমালা ২০১৮’ চূড়ান্ত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে, যেখানে তদন্ত সংস্থাগুলোর অনুসন্ধান ও তদন্তসংক্রান্ত দায়িত্ব বিস্তারিতভাবে উল্লেখ থাকবে। তবে এক্ষেত্রে সংস্থাগুলোর মধ্যে যাতে সমন্বয়ের অভাব না ঘটে, সেদিকে লক্ষ রাখতে হবে। এবং পরিবর্তিত সে ব্যবস্থায় দেশ থেকে টাকা পাচারকারীদের আইনের আওতায় আনার পাশাপাশি বিদেশ থেকে পাচারকৃত অর্থ ফেরত আনার কাজ অনেকটাই সহজ হবে। কিন্ত তদন্ত সংক্রান্ত দায়িত্ব বণ্টন ও পালনের ক্ষেত্রে সরকারের বিভিন্ন সংস্থার মধ্যে সমন্বয়হীনতার ঘটনা প্রায়ই ঘটছে। মূলত ফাইল ম্যানেজমেন্টে কেন্দ্রীয় ব্যবস্থাপনার অনুপস্থিতি, দুর্বল মনিটরিং সিস্টেম, ডাটাবেজ না থাকা এবং ম্যানুয়াল পদ্ধতিতে কার্যক্রম পরিচালনার জন্যই এ ধরনের সমন্বয়হীনতা পরিলক্ষিত হচ্ছে। সংস্থাগুলো নিজস্ব ডাটাবেজ তৈরি ও মনিটরিং ব্যবস্থা শক্তিশালী করার পাশাপাশি যদি অটোমেশন সিস্টেম ডেভেলপ করে, তবে অবস্থার পরিবর্তন হবে।


মার্কিন নিষেধাজ্ঞা থেকে অব্যাহতি চায়- জাপান

এবার বোরকা নিষিদ্ধ করল নেদারল্যান্ড?


এ বিভাগের আরো খবর...

রোহিঙ্গাদের সুরক্ষায় বিশ্ব সম্প্রদায় ব্যর্থ হয়েছে-গুতেরেস রোহিঙ্গাদের সুরক্ষায় বিশ্ব সম্প্রদায় ব্যর্থ হয়েছে-গুতেরেস
রোগীদের মেয়াদোত্তীর্ণ উপাদান দিয়ে অস্ত্রোপচার কতটা ঝুঁকিপূর্ণ? রোগীদের মেয়াদোত্তীর্ণ উপাদান দিয়ে অস্ত্রোপচার কতটা ঝুঁকিপূর্ণ?
শিশু মৃত্যু দায়ী চিকিৎসকের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নিন? শিশু মৃত্যু দায়ী চিকিৎসকের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নিন?
প্রকল্প বাস্তবায়নে-দুর্নীতির দিকে নজর দিন? প্রকল্প বাস্তবায়নে-দুর্নীতির দিকে নজর দিন?
প্রান্তিক জনগোষ্ঠী সামাজিক নিরাপত্তা কতটুকু? প্রান্তিক জনগোষ্ঠী সামাজিক নিরাপত্তা কতটুকু?
মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন- আমলে নিন? মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন- আমলে নিন?
আর্জেন্টিনা ১-০ নাইজেরিয়া, ক্রোয়েশিয়া ০-০ আইসল্যান্ড আর্জেন্টিনা ১-০ নাইজেরিয়া, ক্রোয়েশিয়া ০-০ আইসল্যান্ড
ডোনাল্ড ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রের কূটনীতিকে কোন পথে নিয়ে যাচ্ছেন? ডোনাল্ড ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রের কূটনীতিকে কোন পথে নিয়ে যাচ্ছেন?
দেশের সার্বিক উন্নয়নে খেলাপি ঋণ বন্ধ হওয়া জুরুরি? দেশের সার্বিক উন্নয়নে খেলাপি ঋণ বন্ধ হওয়া জুরুরি?
প্রধানমন্ত্রীর বিমানে ত্রুটির মামলার প্রকৌশলীদের জামিন মঞ্জুর প্রধানমন্ত্রীর বিমানে ত্রুটির মামলার প্রকৌশলীদের জামিন মঞ্জুর

সর্বাধিক পঠিত

ইতিহাস গড়ে চ্যাম্পিয়ন হলো ফরাসিরা! ইতিহাস গড়ে চ্যাম্পিয়ন হলো ফরাসিরা!
বিশ্বকাপে ৩৮ মিলিয়ন ডলারের লড়াই শুরু বিশ্বকাপে ৩৮ মিলিয়ন ডলারের লড়াই শুরু
উ’ কোরিয়া এবং যুক্তরাষ্ট্রের ঊর্ধ্বতন সামরিক কর্মকর্তাদের বৈঠক উ’ কোরিয়া এবং যুক্তরাষ্ট্রের ঊর্ধ্বতন সামরিক কর্মকর্তাদের বৈঠক
পুতিনকে ক্রোয়েশিয়া প্রেসিডেন্টের জার্সি উপহার পুতিনকে ক্রোয়েশিয়া প্রেসিডেন্টের জার্সি উপহার
অতীতে বাংলাদেশ-ক্রোয়েশিয়া ছিল একই মানের দল? অতীতে বাংলাদেশ-ক্রোয়েশিয়া ছিল একই মানের দল?
বিএনপি রাজনীতি থেকে মাইনাস- দীপু মনি বিএনপি রাজনীতি থেকে মাইনাস- দীপু মনি
মিয়ানমার রাজি থাকলেও দুর্ভাগ্যজনকভাবে বাস্তবে নেই- প্রধানমন্ত্রী মিয়ানমার রাজি থাকলেও দুর্ভাগ্যজনকভাবে বাস্তবে নেই- প্রধানমন্ত্রী
হযরত শাহজালাল বিমানবন্দরে অাগুন! হযরত শাহজালাল বিমানবন্দরে অাগুন!
১৯৯৮ বিশ্বকাপেরই পুনরাবৃত্তি যেন এই ফাইনাল ১৯৯৮ বিশ্বকাপেরই পুনরাবৃত্তি যেন এই ফাইনাল
আমাকে যারা নিরাপত্তা দেয় তাদের নিয়ে আমি চিন্তিত- প্রধানমন্ত্রী আমাকে যারা নিরাপত্তা দেয় তাদের নিয়ে আমি চিন্তিত- প্রধানমন্ত্রী
রোহিঙ্গাদের সুরক্ষায় বিশ্ব সম্প্রদায় ব্যর্থ হয়েছে-গুতেরেস
শিশু মৃত্যু দায়ী চিকিৎসকের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নিন?
প্রকল্প বাস্তবায়নে-দুর্নীতির দিকে নজর দিন?
মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন- আমলে নিন?
আর্জেন্টিনা ১-০ নাইজেরিয়া, ক্রোয়েশিয়া ০-০ আইসল্যান্ড
ডোনাল্ড ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রের কূটনীতিকে কোন পথে নিয়ে যাচ্ছেন?
প্রধানমন্ত্রীর বিমানে ত্রুটির মামলার প্রকৌশলীদের জামিন মঞ্জুর
কাঙ্খিত ফল পেতে হলে,ভেজালবিরোধী অভিযান চালু রাখতে হবে?
মাদকযুদ্ধে কেন হারবে বাংলাদেশ?
টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কের দুই ট্রাকের সংঘর্ষে নিহত ৩