ঢাকা, নভেম্বর ১৮, ২০১৮, ৪ অগ্রহায়ন ১৪২৫
---
bbc24news.com
প্রথম পাতা » অর্থ–শেয়ারবাজার » ২০১৯ সাল থেকে পূর্বাচলে বাণিজ্যমেলা
মঙ্গলবার ● ১০ জুলাই ২০১৮, ৪ অগ্রহায়ন ১৪২৫
Email this News Print Friendly Version

২০১৯ সাল থেকে পূর্বাচলে বাণিজ্যমেলা

---বিবিসি২৪নিউজ,নিজস্ব প্রতিবেদক:২০১৯ সাল থেকে ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্যমেলা অনুষ্ঠিত হবে পূর্বাচলে। ‘বাংলাদেশ-চায়না ফ্রেন্ডশিপ এক্সিবিশন সেন্টার নির্মাণ’ প্রকল্পের আওতায় এ উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।আজ শেরে বাংলানগরের এনইসি সম্মেলন কক্ষে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় এ প্রকল্পটির অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এতে সভাপতিত্ব করেন একনেক চেয়ারপারসন ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।বৈঠক শেষে অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এমএ মান্নান বলেন, যদিও প্রকল্পের মেয়াদ ২০২০ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত নির্ধারণ করা হয়েছে, তবে এর আগে অর্থাৎ ২০১৯ সালের মধ্যেই এক্সিবিশন সেন্টার নির্মাণ করে দিতে সম্মতি দিয়েছে চীন।‘সব অবকাঠামো চীনে নির্মিত হবে, পূর্বাচলে শুধু এগুলো বসানো হবে। ফলে দ্রুত সময়েই এটা নির্মিত হবে বলে আমরা আশাবাদী।

এমএ মান্নান বলেন, প্রধানমন্ত্রী দ্রুত সময়ে এক্সিবিশন সেন্টার নির্মাণের নির্দেশ দিয়েছেন। চীন সরকারও আমাদের আশ্বাস দিয়েছে ২০১৯ সালের মধ্যেই এটি নির্মিত হবে।তিনি বলেন, নারায়ণগঞ্জ জেলার রূপগঞ্জে পূর্বাচল নিউ টাউনে বাণিজ্যমেলার জন্য এক্সিবিউশন সেন্টারটি নির্মিত হবে। এটি নির্মাণে মোট ব্যয় ধরা করা হয়েছে ১ হাজার ৩০৩ কোটি টাকা। এর মধ্যে চীন সরকার ৬২৫ কোটি টাকা ঋণ দেবে। মোট ২০ একর জমিতে নির্মিত হবে এটি।

‘নতুন নতুন স্থাপনা নির্মাণ, সেন্টারের পরিসর বৃদ্ধি, সেন্টারটি রক্ষণাবেক্ষণের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার কারণে একনেক সভায় প্রকল্পের ব্যয় বাড়ানো হয়েছে,’ বলেন অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী।
এদিকে একনেক সভায় এক্সিবিউশন সেন্টার নির্মাণসহ মোট ছয়টি প্রকল্পের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। প্রতিমন্ত্রী এমএ মান্নান বলেন, এসব প্রকল্পের মোট ব্যয় নির্ধারণ করা হয়েছে ২ হাজার ৯২০ কোটি টাকা।

অনুমোদন পাওয়া অন্যান্য প্রকল্পগুলো হচ্ছে- মাইজদী-রাজগঞ্জ-ছয়ানী-বসুরহাট-চন্দ্রগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়ককে যথাযথ মান ও প্রশস্ততায় উন্নীতকরণ প্রকল্প, পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশিপের (পিপিপি) আওতায় খানজাহান আলী বিমানবন্দর নির্মাণ প্রকল্পের জমি অধিগ্রহণের জন্য লিংক প্রকল্প, বাংলাদেশের ৩৭টি জেলার সার্কিট হাউজের ঊর্ধ্বমুখী সম্প্রসারণ প্রকল্প, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিকতর উন্নয়ন প্রকল্প, সারাদেশের পুরাতন খাদ্য গুদাম ও আনুষঙ্গিক সুবিধাদির মেরামত এবং নতুন অবকাঠামো নির্মাণ প্রকল্প।


রোগীদের মেয়াদোত্তীর্ণ উপাদান দিয়ে অস্ত্রোপচার কতটা ঝুঁকিপূর্ণ?

শিক্ষার্থীদের জঙ্গি বলিনি- ঢাবি উপাচার্য


এ বিভাগের আরো খবর...

বাণিজ্যযুদ্ধের প্রস্তুতি নিতে হবে বাংলাদেশকে বাণিজ্যযুদ্ধের প্রস্তুতি নিতে হবে বাংলাদেশকে
শীর্ষ বৈঠকের সমাপ্তি ঘোষণা প্রকাশে ব্যর্থ- এপেক শীর্ষ বৈঠকের সমাপ্তি ঘোষণা প্রকাশে ব্যর্থ- এপেক
আগামী বছর উত্তর কোরিয়া সফরে যাবেন-শি জিন পিং আগামী বছর উত্তর কোরিয়া সফরে যাবেন-শি জিন পিং
শিগগিরই খাসোগি হত্যাকারীদের নাম জানাবে- আমেরিকা শিগগিরই খাসোগি হত্যাকারীদের নাম জানাবে- আমেরিকা
ভারতে স্বর্ণের চাহিদা বেড়েছে ১৭.৪ টন ভারতে স্বর্ণের চাহিদা বেড়েছে ১৭.৪ টন
চিলিতে তামা উৎপাদন ৭.৩% চিলিতে তামা উৎপাদন ৭.৩%
মিয়ানমারে রোহিঙ্গা শিবিরে পুলিশের অভিযান মিয়ানমারে রোহিঙ্গা শিবিরে পুলিশের অভিযান
ইউনাইটেডের ইপিএস ৩ টাকা ৭১ পয়সা ইউনাইটেডের ইপিএস ৩ টাকা ৭১ পয়সা
এবার কোথাও থার্টি ফার্স্ট নাইট পালন করা যাবে না- স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এবার কোথাও থার্টি ফার্স্ট নাইট পালন করা যাবে না- স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
বিডি সার্ভিসেসের লভ্যাংশ সভা ২৫ নভেম্বর বিডি সার্ভিসেসের লভ্যাংশ সভা ২৫ নভেম্বর

সর্বাধিক পঠিত

বাণিজ্যযুদ্ধের প্রস্তুতি নিতে হবে বাংলাদেশকে বাণিজ্যযুদ্ধের প্রস্তুতি নিতে হবে বাংলাদেশকে
শীর্ষ বৈঠকের সমাপ্তি ঘোষণা প্রকাশে ব্যর্থ- এপেক শীর্ষ বৈঠকের সমাপ্তি ঘোষণা প্রকাশে ব্যর্থ- এপেক
আগামী বছর উত্তর কোরিয়া সফরে যাবেন-শি জিন পিং আগামী বছর উত্তর কোরিয়া সফরে যাবেন-শি জিন পিং
শিগগিরই খাসোগি হত্যাকারীদের নাম জানাবে- আমেরিকা শিগগিরই খাসোগি হত্যাকারীদের নাম জানাবে- আমেরিকা
বগুড়ায় মেলায় বিশালাকৃতির মাছের পসরা বসেছে বগুড়ায় মেলায় বিশালাকৃতির মাছের পসরা বসেছে
ভারতে স্বর্ণের চাহিদা বেড়েছে ১৭.৪ টন ভারতে স্বর্ণের চাহিদা বেড়েছে ১৭.৪ টন
টেস্টে ক্যাপ্টেন হওয়ার পর ধোনির কৃর্তী ফাঁস করলেন লক্ষ্মণ! টেস্টে ক্যাপ্টেন হওয়ার পর ধোনির কৃর্তী ফাঁস করলেন লক্ষ্মণ!
চিলিতে তামা উৎপাদন ৭.৩% চিলিতে তামা উৎপাদন ৭.৩%
মিয়ানমারে রোহিঙ্গা শিবিরে পুলিশের অভিযান মিয়ানমারে রোহিঙ্গা শিবিরে পুলিশের অভিযান
“জীবনের শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত বঙ্গবন্ধুর আদর্শ নিয়ে বাঁচতে চাই” “জীবনের শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত বঙ্গবন্ধুর আদর্শ নিয়ে বাঁচতে চাই”
নির্বাচনে সবার অংশগ্রহণ-গণতন্ত্রের জন্য ইতিবাচক
বহুল প্রত্যাশিত সংলাপে কি ছিল?
একটি অর্থবহ ও সফল সংলাপের প্রত্যাশা করছি
শেখ হাসিনা বার্ন ইন্সটিটিউটের: প্রত্যাশিত স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত হবে কি?
নদীশাসনের দুর্বলতা বিঘ্নিত হচ্ছে নৌপথে চলাচল
শিল্পে গ্যাস সংযোগ না দেওয়া, আর্থিক ক্ষতির মুখে-সরকার
গুদামের খাদ্যদ্রব্য পাচারে-সক্রিয় চোর সিন্ডিকেট
প্যারিস জলবায়ু চুক্তি ৩০০ পৃষ্ঠার খসড়া অনুমোদন করেছে-ব্যাংকক
সড়ক শৃঙ্খলা-মূল সমস্যাটা রাজনীতিতেই: কাদের
বিশ্বের ভয়াবহ আবহাওয়া নিয়ে প্রযুক্তিগত আলোচনা চলছে