ঢাকা, ডিসেম্বর ১২, ২০১৮, ২৮ অগ্রহায়ন ১৪২৫
---
bbc24news.com
প্রথম পাতা » আনন্দ-বিনোদন » ‘ক্যামেরা পিছনে আমি সাধারণ মেয়ে’
বৃহস্পতিবার ● ৯ আগস্ট ২০১৮, ২৮ অগ্রহায়ন ১৪২৫
Email this News Print Friendly Version

‘ক্যামেরা পিছনে আমি সাধারণ মেয়ে’

---বিবিসি২৪নিউজ,বিনোদন ডেস্ক:প্রশ্ন:অভিনেত্রীদের তো অনেক সাজগোজ করে থাকতে হয়। আর আপনি নাকি সাজতে একদম ভালবাসেন না?উ: একদম ঠিক! কানে দুল পরতেও আমার আলস্য লাগে। মা তো খুব চিৎকার করে। আমি স্কুললাইফ থেকেই টমবয়। স্কুল শুরু হওয়ার আগেই স্কুলের মাঠে পৌঁছে যেতাম আর ফুটবল খেলতাম। আর ইউনিফর্মের বারোটা বাজাতাম। বসে বসে খেলা দেখতে ভাল লাগে না আমার। খেলতে বেশি ভাল লাগে। আমার পছন্দের খেলা বাস্কেটবল আর ফুটবল। যাই হোক, আমি জানতাম অভিনয়ে আসার পরে ভাল দেখতে লাগাটা খুব জরুরি। তাই ব্যালান্স রাখি। ক্যামেরা অফ হয়ে গেলেই সাধারণ মেয়ের মতো থাকি।

প্র: সাজতে ভালবাসেন না, অথচ ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রিতে আসলেন কেন?

উ: কারণ আমি সাজাতে ভালবাসি। একটা সময়ে স্কেচিং করতে ভাল লাগত। আর সেই থেকেই ফ্যাশনে আসার ইচ্ছে হয়। স্কুলে আমি স্টিচিংয়ে ফার্স্ট হতাম। এখনও যদি কেউ একটা সেলাই মেশিন দিয়ে দেয়, আমি একটা গোটা ড্রেস বানিয়ে ফেলব! সময়ের অভাবে এ সব আর করা হয় না।

প্র: দৈনন্দিন জীবনের স্ট্রেস থেকে নিজেকে দূরে রাখেন কী করে?

উ: স্কেচিং অ্যান্ড পেন্টিং। কোনও কিছু গড়তে খুব পছন্দ করি। ক্লান্ত হয়ে বাড়ি ফিরলেও মনে হয় না ঘুমোই। সোজা পেন্টিং রুমে চলে যাই। ল্যান্ডস্কেপ, পোর্ট্রেট, অ্যাবস্ট্রাক্ট… সবই আঁকি। বড় কালেকশন বাড়িতে আছে। সুযোগ করে এগজ়িবিশন নিশ্চয়ই করব।

প্র: দব‌ং টুর কেমন হল?

উ: লাইভ পারফরম্যান্স আমাকে এক্সট্রা কিক দেয়। স্টেজের ভয় কখনও ছিল না। তিন সপ্তাহ টুর করেছি। সঙ্গে ঘোরা, খাওয়া, শপিং, রিহার্সাল— সব! তবে হেকটিক ছিল। সপ্তাহান্তে শো থাকত। তার পরে মধ্যরাতে ফ্লাইট ধরে অন্য শহর আর পরের শোয়ের প্রস্তুতি।

প্র: সলমনের সঙ্গে লাইভ পারফর্ম করতে নার্ভাস লাগে না? উনি নাকি নাচতে নাচতে স্টেপ বদলে দেন…

উ: প্রথম প্রথম পাশ-ফেলের ভয় থাকেই। এখন আমি ওর সঙ্গে স্বচ্ছন্দ। স্টেজে ও বড্ড ইম্প্রোভাইজ় করে। কিন্তু আমিও ওরই মতো, তাই আমাদের তালমিল ভাল। সলমনের সঙ্গে লাইভ করার মজাই আলাদা! আর ও-ই আমার মধ্যে সিনেমার পোকার সন্ধান পেয়েছিল। তখন কেউ ভাবতেই পারেনি, আমি এত মোটা হয়ে কী করে নায়িকা হব! তবে ওকে প্রথম প্রথম ভয় পেতাম, যখন ‘দবং’-এর শুটিং করছিলাম।

প্র: ‘হ্যাপি ফির ভাগ যায়েগি’ কেন করলেন?

উ: ছবির চিত্রনাট্য যখন শুনি, খুব হেসেছিলাম। আমার ছবি বাছার পদ্ধতিটা সহজ। স্ক্রিপ্ট শুনে গল্পের সঙ্গে কানেক্ট করছি কি না দেখে নিই। সেটা এক বার হয়ে গেলে ছবিতে সই করে ফেলি।

প্র: আপনার কাছে ‘হ্যাপি’ থাকার সংজ্ঞা কী?

উ: আমি অল্পেই খুশি। পরিবার আর বন্ধুদের সঙ্গে সময় কাটাতে পারলেই খুশি থাকি। তবে কোনও দিন সমস্যা থেকে পালাই না। সমস্যা মিটিয়ে তবে নিশ্চিন্ত হই।

প্র: এর পর তো আরও ব্যস্ততা… ‘কলঙ্ক’ আর ‘দবং থ্রি’র কাজ!

উ: হ্যাঁ, সামনের বছর ‘কলঙ্ক’ মুক্তি পাবে। এত বড় স্টারকাস্টের সঙ্গে কাজ করতে পারার অভিজ্ঞতা খুব স্পেশ্যাল। মাধুরী দীক্ষিতের সঙ্গে কাজ করার অনুভূতিই আলাদা। ওঁর ভঙ্গিমা, নাচের স্টাইল, অভিনয়শৈলী সব কিছুতেই বৈচিত্র রয়েছে। ‘কলঙ্ক’-এর পরে ‘দবং থ্রি’র শুটিং শুরু হবে। অনেক দিন ধরে অপেক্ষা করছিলাম ছবিটার জন্য। প্রভু স্যর (প্রভু দেবা) পরিচালক হিসেবে কাজ করছেন।


মার্কিন নিষেধাজ্ঞা থাকলেও ইরান থেকে গ্যাস আমদানি করবে- তুরস্ক

মেক আপ ছাড়া বলি নায়িকাদের আপনি চিনতেই পারবেন না!


এ বিভাগের আরো খবর...

দেব-রুক্মিণীর বিয়ে কবে? দেব-রুক্মিণীর বিয়ে কবে?
ওমানে নিক-প্রিয়াঙ্কা ওমানে নিক-প্রিয়াঙ্কা
সমাপনীর ফল ২৪ ডিসেম্বর সমাপনীর ফল ২৪ ডিসেম্বর
অভিনয়ে ফিরলেন ‘আম্মাজান’খ্যাত শবনম অভিনয়ে ফিরলেন ‘আম্মাজান’খ্যাত শবনম
ইমন-নাদিয়ার প্রেম ইমন-নাদিয়ার প্রেম
সাংবাদিক পরীমণির চমক! সাংবাদিক পরীমণির চমক!
ছাত্রকে নগ্ন ছবি পাঠানোর অভিযোগ র‌্যামসের বিরুদ্ধে! ছাত্রকে নগ্ন ছবি পাঠানোর অভিযোগ র‌্যামসের বিরুদ্ধে!
রোহিঙ্গাদের অতীত ‘ছাই থেকে ফুল’ রোহিঙ্গাদের অতীত ‘ছাই থেকে ফুল’
নরওয়েতে পুরস্কৃত হলেন জাহ্নবী নরওয়েতে পুরস্কৃত হলেন জাহ্নবী
চুপিসাড়ে বিয়ে করলেন জন আব্রাহাম চুপিসাড়ে বিয়ে করলেন জন আব্রাহাম

সর্বাধিক পঠিত

১৬৩ দিনে  ৫৯ লাখ টন সয়াবিন আমদানি ইইউর ১৬৩ দিনে ৫৯ লাখ টন সয়াবিন আমদানি ইইউর
যতই নির্যাতন করুক মাঠ ছাড়ব না- মওদুদ যতই নির্যাতন করুক মাঠ ছাড়ব না- মওদুদ
নাজিবের বিরুদ্ধে নতুন দুর্নীতির মামলা নাজিবের বিরুদ্ধে নতুন দুর্নীতির মামলা
আইপিওর অর্থ অনিয়ম : প্যাসিফিক এমডিকে কোম্পানির অর্থ ফেরত দেয়ার নির্দেশ আইপিওর অর্থ অনিয়ম : প্যাসিফিক এমডিকে কোম্পানির অর্থ ফেরত দেয়ার নির্দেশ
ডিসি-কমিশনারদের রিটার্নিং কর্মকর্তা নিয়োগ কেন অবৈধ নয়- হাইকোর্ট ডিসি-কমিশনারদের রিটার্নিং কর্মকর্তা নিয়োগ কেন অবৈধ নয়- হাইকোর্ট
জ্বালানির মূল্যযুদ্ধ করছে ইরান ? জ্বালানির মূল্যযুদ্ধ করছে ইরান ?
আ’লীগ ভোট চুরি করতে পারে: ফখরুল আ’লীগ ভোট চুরি করতে পারে: ফখরুল
আইপিএল এর নিলামে মুশফিক-মাহমুদউল্লাহ আইপিএল এর নিলামে মুশফিক-মাহমুদউল্লাহ
ইসিতে বিএনপির প্রতিনিধিদল ইসিতে বিএনপির প্রতিনিধিদল
ভালো’ ব্যাংকেও খেলাপি ভালো’ ব্যাংকেও খেলাপি
জলবায়ু পরিবর্তনে বিশ্বব্যাংক-আইএফসি ২২ বিলিয়ন ডলার দিবে
জলবায়ু পরিবর্তনের যুদ্ধে নারীর অংশগ্রহণ করতে হবে-প্যাট্রিসিয়া
বিএনপির দুটি আসনের পরিবর্তন
কলেজ শিক্ষক আলী হোসেন হত্যা দুইজনের ত্যুদণ্ড
নির্বাচনে সবার অংশগ্রহণ-গণতন্ত্রের জন্য ইতিবাচক
বহুল প্রত্যাশিত সংলাপে কি ছিল?
একটি অর্থবহ ও সফল সংলাপের প্রত্যাশা করছি
শেখ হাসিনা বার্ন ইন্সটিটিউটের: প্রত্যাশিত স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত হবে কি?
নদীশাসনের দুর্বলতা বিঘ্নিত হচ্ছে নৌপথে চলাচল
শিল্পে গ্যাস সংযোগ না দেওয়া, আর্থিক ক্ষতির মুখে-সরকার