ঢাকা, অক্টোবর ১৫, ২০১৮, ৩০ আশ্বিন ১৪২৫
---
bbc24news.com
প্রথম পাতা » জেলার খবর » দিনাজপুরে নৈশ প্রহরী খুনের ঘটনা, সন্দেহভাজনকে পুড়িয়ে হত্যা
বৃহস্পতিবার ● ৯ আগস্ট ২০১৮, ৩০ আশ্বিন ১৪২৫
Email this News Print Friendly Version

দিনাজপুরে নৈশ প্রহরী খুনের ঘটনা, সন্দেহভাজনকে পুড়িয়ে হত্যা

---বিবিসি২৪নিউজ,নিজস্ব সংবাদদাতা:দিনাজপুরের পুলিশ সুপার হামিদুল আলম জানান, দিনাজপুরের বীরগঞ্জে এক নৈশ প্রহরী খুন হওয়ার পর সন্দেহভাজন খুনিকে ধরে পুড়িয়ে হত্যা করেছে স্থানীয় জনতা।ভোরে বীরগঞ্জ উপজেলার শালবাগান ও হাটতলা মোড়ে এই দুই হত্যাকাণ্ড ঘটে।

নিহত নৈশ প্রহরী সুরুজ আলী (৫০) বীরগঞ্জ পৌরসভার জেলখানা মোড় এলাকার আবুল কাশেমের ছেলে। আর জনতার হাতে নিহত রবিউল ইসলাম (৩২) একই এলাকার তারা মিয়ার ছেলে।

পুলিশ বলছে, নৈশপ্রহরী সুরুজ আলী ভোরে শালবাগান মোড়ে দায়িত্ব পালনের সময় তাকে ছুরি মেরে হত্যা করা হয়। এর পরপরই হাটখোলা মোড়ে দায়িত্বরত নৈশপ্রহরী শহীদ (৪০) ‘দুর্বৃত্তের’ ছুরিকাঘাতে আহত হন।

এ খবর ছড়িয়ে পড়লে স্থানীয়রা উত্তেজিত হয়ে ওঠে এবং সকাল ৬টার দিকে দিনাজপুর-রংপুর-পঞ্চগড় মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখাতে থাকে। এর মধ্যে জেলখানা মোড় এলাকায় রবিউলের বাড়িতে রক্তমাখা জামা-কাপড় পাওয়া গেলে তাকে খুঁজতে শুরু করে জনতা।

স্থানীয় বাসিন্দা সুলতান আহমেদ বলেন, ঘণ্টা দুই পর তেরমাইল গড়েয়া এলাকায় রবিউলকে পাওয়া গেলে তাকে ধরে শালবাগান এলাকায় এনে পেটানো হয়। পরে গায়ে আগুন দিয়ে তাকে পুড়িয়ে হত্যা করে জনতা।

খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। পুলিশ সুপার হামিদুল আলমসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

পুলিশের হস্তক্ষেপে বেলা ১০টার দিকে দিনাজপুর-রংপুর-পঞ্চগড় মহাসড়কে যান চলাচল শুরু হলেও এলাকায় চাপা উত্তেজনা বিরাজ করছে বলে স্থানীয় বাসিন্দা আব্দুর রাজ্জাক জানান।

পুলিশ সুপার হামিদুল আলম বলেন, “প্রাথমিক তথ্যে মনে হয়েছে, রবিউল একাই ওই হত্যায় জড়িত। এলাকাবাসী বিষয়টি জানার পর তাকে ধরে এনে পুড়িয়ে হত্যা করেছে। তবে স্থানীয়রা বলেছে, রবিউল খানিকটা পাগল প্রকৃতির।


চাঁদপুরে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১

ট্রেনের টিকিট পেতে মানুষের লম্বা লাইন


এ বিভাগের আরো খবর...

জেনভায়ো ফার্মার আয়োজনে ক্যানসার সচেতনতাবিষয়ক কর্মসূচি জেনভায়ো ফার্মার আয়োজনে ক্যানসার সচেতনতাবিষয়ক কর্মসূচি
আবারও মনোবিদের দ্বারস্ত বাংলাদেশ দল আবারও মনোবিদের দ্বারস্ত বাংলাদেশ দল
মাঠে ফিরতে পারি অনুমিত সময়ের আগেই:সাকিব মাঠে ফিরতে পারি অনুমিত সময়ের আগেই:সাকিব
নিজেরাই সিনেমাকে শেষ করে দিচ্ছি নিজেরাই সিনেমাকে শেষ করে দিচ্ছি
বিলাসবহুল বিএমডব্লিউ গাড়ি পেলেন- সিইসি বিলাসবহুল বিএমডব্লিউ গাড়ি পেলেন- সিইসি
পরিস্থিতিগুলো আমার জন্য চ্যালেঞ্জিং- মুশফিক পরিস্থিতিগুলো আমার জন্য চ্যালেঞ্জিং- মুশফিক
মঙ্গলবার থেকে ডেন্টালে আবেদন শুরু মঙ্গলবার থেকে ডেন্টালে আবেদন শুরু
ফের চট্টগ্রাম-কক্সবাজার বাস বন্ধ ফের চট্টগ্রাম-কক্সবাজার বাস বন্ধ
সুসংবাদ অপারেশন নাও লাগতে পারে সাকিবের সুসংবাদ অপারেশন নাও লাগতে পারে সাকিবের
জিম্বাবুয়ে সিরিজ থেকে বাদ পড়লেন মোসাদ্দেক জিম্বাবুয়ে সিরিজ থেকে বাদ পড়লেন মোসাদ্দেক

সর্বাধিক পঠিত

জা বি স্নাতকের ভর্তির ২য় মেধা তালিকা প্রকাশ আজ জা বি স্নাতকের ভর্তির ২য় মেধা তালিকা প্রকাশ আজ
রিজভীর বক্তব্য রায়ের প্রতি ‘বৃদ্ধাঙ্গুলি’- হাছান মাহমুদ রিজভীর বক্তব্য রায়ের প্রতি ‘বৃদ্ধাঙ্গুলি’- হাছান মাহমুদ
সিমেন্টের দাম ১০% বাড়তে পারে-ভারতে সিমেন্টের দাম ১০% বাড়তে পারে-ভারতে
সিনেমায় শাবনূরের ২৫ বছর পার হল সিনেমায় শাবনূরের ২৫ বছর পার হল
পাকিস্তানে চাল উৎপাদন কমবে ১ লাখ টন পাকিস্তানে চাল উৎপাদন কমবে ১ লাখ টন
মূলধন বেড়েছে ব্যাংক বীমা ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের মূলধন বেড়েছে ব্যাংক বীমা ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের
দায়িত্বশীল আচরণ দিয়ে যাত্রাকে নির্বিঘ্ন ও সুন্দর করে তুলতে পারি দায়িত্বশীল আচরণ দিয়ে যাত্রাকে নির্বিঘ্ন ও সুন্দর করে তুলতে পারি
এফএএস ফিন্যান্সের ডিএমডি মো. নূরুল হক গাজী এফএএস ফিন্যান্সের ডিএমডি মো. নূরুল হক গাজী
আবারও ইসির বৈঠক থেকে বেরিয়ে গেলেন- মাহবুব তালুকদার আবারও ইসির বৈঠক থেকে বেরিয়ে গেলেন- মাহবুব তালুকদার
জেনভায়ো ফার্মার আয়োজনে ক্যানসার সচেতনতাবিষয়ক কর্মসূচি জেনভায়ো ফার্মার আয়োজনে ক্যানসার সচেতনতাবিষয়ক কর্মসূচি
শিল্পে গ্যাস সংযোগ না দেওয়া, আর্থিক ক্ষতির মুখে-সরকার
গুদামের খাদ্যদ্রব্য পাচারে-সক্রিয় চোর সিন্ডিকেট
প্যারিস জলবায়ু চুক্তি ৩০০ পৃষ্ঠার খসড়া অনুমোদন করেছে-ব্যাংকক
সড়ক শৃঙ্খলা-মূল সমস্যাটা রাজনীতিতেই: কাদের
বিশ্বের ভয়াবহ আবহাওয়া নিয়ে প্রযুক্তিগত আলোচনা চলছে
রোহিঙ্গা প্রশ্নে চীন-রাশিয়াকে-জাতিসংঘের কড়া হুুশিয়ারি!
খালেদা জিয়ার জামিন বহাল
বিমসটেক শীর্ষ সম্মেলনে নেপালে প্রধানমন্ত্রী
আওয়ামী লীগের জন্য যা পেয়েছি তা ভয়ংকর!
‘ট্যঁর দ্যে ফ্যাম’ রিপোর্ট: জার্মানিতে যৌনাঙ্গচ্ছেদে শিকার-৬৫হাজার নারী