ঢাকা, ফেব্রুয়ারী ২৩, ২০১৯, ১১ ফাল্গুন ১৪২৫
---
bbc24news.com
প্রথম পাতা » পরিবেশ ও জলবায়ু » বাল্য বিয়ে নিয়ে আলোচনার চাপে মালয়েশিয়া
রবিবার ● ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১১ ফাল্গুন ১৪২৫
Email this News Print Friendly Version

বাল্য বিয়ে নিয়ে আলোচনার চাপে মালয়েশিয়া

---বিবিসি২৪নিউজ,আন্তর্জাতিক ডেস্ক:দুটি শিশু মেয়ের এক বৃদ্ধের সঙ্গে বিয়ে হওয়ার বিষয়টি আলোচনায় আসার পর বাল্য বিয়ে বন্ধের জন্য মালয়েশিয়া সরকারের ওপর আন্তর্জাতিক মহলের চাপ বেড়েছে৷দেশটির উত্তর-পূর্বাঞ্চলের দারিদ্র্যপীড়িত কেলানতান প্রদেশে ৪৪ বছরের এক মুসলমানের দ্বিতীয় বিয়েতে ১৫ বছরের এক কিশোরী কন্যা হওয়ার খবর দিয়েছে নিউ স্ট্রেইটস টাইমস পত্রিকা৷

তাদের প্রতিবেদনে বলা হয়, দারিদ্র্যের কারণে মেয়েটির বাবা-মা সম্মতি দেওয়ার পর গত জুলাইয়ে ইসলামি শরিয়া আদালতে এই বিয়ে অনুমোদিত হয়৷

কেলানতান প্রদেশেই এক রাবার ব্যবসায়ী তৃতীয় স্ত্রী হিসেবে ১১ বছরের একটি মেয়েকে বিয়ে করেছেন যে মাসে, সেই মাসেই বিতর্কিত এই বিয়ে হয়েছে৷ তবে ঘটনাটি প্রকাশ পেয়েছে চলতি সপ্তাহে৷

মালয়েশিয়ায় শরিয়া আদালত ও অভিভাবকের সম্মতিতে বিয়ের ন্যূনতম বয়স ১৬ বছরের কম বয়সি মেয়েদেরও বিয়ের বৈধতা রয়েছে৷ আর মুসলমানরা চারটি পর্যন্ত বিয়ে করতে পারে৷

অসম বিয়ের নতুন খবরটি ছড়িয়ে পড়ার পর শিশু অধিকার নিয়ে কাজ করা গ্রুপগুলো আবারও সোচ্চার হয়েছে৷ ইউনিসেফ এক বিবৃতিতে এই বিয়েকে ‘অগ্রহণযোগ্য’ আখ্যায়িত করে এ ধরনের বিয়ে বন্ধে আইনি পরিবর্তন আনতে মালয়েশিয়ার প্রতি আহ্বান জানিয়েছে৷

মালয়েশিয়ায় ইউনিসেফের প্রতিনিধি মারিয়ানে ক্লার্ক-হাটিং বলেন, ‘‘বাল্য বিয়ে নিয়ে নতুন আইন করতে হবে, যাতে মেয়েদের মাধ্যমিক শিক্ষায় প্রবেশ বাধ্যতামূলক, প্রজনন স্বাস্থ্য শিক্ষা ও দারিদ্র্য বিমোচনের মতো বিষয়গুলোকে অন্তর্ভুক্ত করতে হবে৷’

মেয়েটির বাবা-মার বরাত দিয়ে নিউ স্ট্রেইটস টাইমস লিখেছে, ১৩ ভাই-বোনের মধ্যে সবার ছোট ও লেখাপড়া বন্ধ হওয়া মেয়ের ‘ভালো ভবিষ্যতের’ জন্য তারা এই বিয়ে দিয়েছেন৷

একইভাবে কেলানতানে বাবা-মার সঙ্গে থাকা ১১ বছরের ওই থাই মেয়েটিরও লেখাপড়া বন্ধ হয়েছিল, তার পরিবারও দরিদ্র৷

দুই বউ এবং ৫ থেকে ১৮ বছর বয়সি ছয় সন্তানের বাবা ৪১ বছর বয়সি রাবার ব্যবসায়ী থাইল্যান্ডে গিয়ে গোপনে মেয়েটিকে বিয়ে করেন৷ তার এক বউ বিষয়টি নিয়ে পুলিশে অভিযোগ করলে এই বিয়ের খবর প্রকাশ হয়৷

পরে অনুমতি না নেওয়ার জন্য ওই ব্যক্তিকে জরিমানা করে শরিয়া আদালত৷ তবে অপ্রাপ্ত বয়স্ক মেয়েকে বিয়ে করার জন্য তার বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ আনা হয়নি৷

তিনি স্থানীয় সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, পাঁচ বছর পর তার নতুন স্ত্রীর বয়স ১৬ বছর হলে বিয়ের সনদের আবেদনের মাধ্যমে তিনি এই বিয়ের আনুষ্ঠানিক স্বীকৃতি আদায় করবেন৷

ওই মেয়েটিকে থাইল্যান্ডে ফেরত পাঠানো হয়েছে এবং তাকে একটি সেবাকেন্দ্রে রাখা হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে৷

মালয়েশিয়ার উপ প্রধানমন্ত্রী ওয়ান আজিজাহ ওয়ান ইসমাইল বলেছেন, সর্বশেষ প্রকাশিত ঘটনাটি তারা তদন্ত করে দেখছেন৷ তবে এই বিয়ে শরিয়া আদালতে অনুমোদিত হওয়ায় তাদের হাত-পা বাঁধা৷

তিনি বলেন, মুসলিম মেয়েদের ন্যূনতম বিয়ের বয়স বাড়িয়ে ১৮ বছর করতে চাইছে সরকার৷

মালয়েশিয়ায় দুই ধরনের বিচার ব্যবস্থা রয়েছে৷ দেশটির তিন কোটি ১০ লাখ নাগরিকের প্রায় দুই তৃতীয়াংশ মুসলিম, যাদের পারিবারিক, বিয়ে ও ব্যক্তিগত নানা বিষয়ের ফায়সালা ইসলামি আদালতের মাধ্যমে হয়ে থাকে৷

মানবাধিকার সংগঠন লইয়ারস ফর লিবার্টি সর্বশেষ ঘটনায় ৪৪ বছরের ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে মেয়েটিকে ‘যৌনতায় প্ররোচিত’ করার ঘটনা ঘটেছে কিনা, তা খতিয়ে দেখতে পুলিশের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে৷

বিয়ের কয়েক মাস আগে থেকে মেয়েটি তার পরিচিত থাকার বিষয়টি জানতে পেরে এই সন্দেহ করছে তারা৷

সংগঠনটি বলছে, শিশুকে ধর্ষণ বা যৌন নিপীড়নের অভিযোগ থেকে বাঁচতে এখন এ ধরনের বিয়ের সুযোগকে কাজে লাগানো হচ্ছে৷

সংগঠনটির নির্বাহী পরিচালক লাথিফা কোয়া এক বিবৃতিতে বলেন, ‘‘এটা দেশের শিশুদের, বিশেষ করে মুসলিম শিশুদের যৌন বিকৃতিমনা ও শিশু নিপীড়কদের কাছে অসহায় করে তুলছে,।

মালয়েশিয়ার মানবাধিকার কমিশন বলছে, আইনের সুযোগ নিয়ে অভিভাবকরা এখন বিয়ের ছদ্মবেশে তাদের শিশু সন্তানকে ‘বিক্রি করতে পারছে’-বিষয়টি নিয়ে তারা উদ্বিগ্ন৷

কমিশনের চেয়ারম্যান রাজালি ইসমাইল বলেন, ‘‘এখন দেখা যাচ্ছে, শরিয়া আদালতের কাছে অপ্রাপ্ত বয়স্ক মেয়েকে বিয়ের অনুমতির ক্ষেত্রে দারিদ্র্যও একটি কারণ হিসেবে গৃহীত হচ্ছে৷ এখানে শিশুদের একটি পণ্য হিসেবেই বিবেচনা করা হচ্ছে৷

দরিদ্র পরিবারের শিশুদের সামাজিক সুরক্ষার পাশাপাশি আইন করে বাল্য বিয়ে বন্ধের জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানান তিনি৷


চীন-হংকং এর দ্রুতগামী রেল নিয়ে এতস বিতর্ক কেন?

সাধারণ ভুলে কিডনির ক্ষতি হয়


এ বিভাগের আরো খবর...

পাকিস্তান শান্তিপ্রিয় জাতি কিন্তু হুমকির মুখে ভীত না: পাক সেনাপ্রধান পাকিস্তান শান্তিপ্রিয় জাতি কিন্তু হুমকির মুখে ভীত না: পাক সেনাপ্রধান
যুদ্ধে বিজয়ী হতে সব উপায় অবলম্বন করবে- ভারত যুদ্ধে বিজয়ী হতে সব উপায় অবলম্বন করবে- ভারত
কেলি ক্র্যাফটকে জাতিসংঘে রাষ্ট্রদূত নিয়োগ দিলেন- ট্রাম্প কেলি ক্র্যাফটকে জাতিসংঘে রাষ্ট্রদূত নিয়োগ দিলেন- ট্রাম্প
সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াই, কাশ্মীরের বিরুদ্ধে নয়- মোদি সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াই, কাশ্মীরের বিরুদ্ধে নয়- মোদি
৮ লাখ রোহিঙ্গাকে ফেরত পাঠানোর চেষ্টা চলছে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী ৮ লাখ রোহিঙ্গাকে ফেরত পাঠানোর চেষ্টা চলছে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী
যবিপ্রবির ২০ বিভাগের চেয়ারম্যানের একযোগে পদত্যাগ! যবিপ্রবির ২০ বিভাগের চেয়ারম্যানের একযোগে পদত্যাগ!
গণশুনানির নামে ‘ঘুমানো চক্র’ ষড়যন্ত্র করছে: আইনমন্ত্রী গণশুনানির নামে ‘ঘুমানো চক্র’ ষড়যন্ত্র করছে: আইনমন্ত্রী
জম্মু - কাশ্মীরজুড়ে ভীতিকর অবস্থা! জম্মু - কাশ্মীরজুড়ে ভীতিকর অবস্থা!
ভারতে বিমান ঘাঁটিতে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে ৩০০ গাড়ি পুড়ে ছাই ভারতে বিমান ঘাঁটিতে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে ৩০০ গাড়ি পুড়ে ছাই
পাল্টে গেল ট্রাম্প প্রশাসনের ঘোষণা পাল্টে গেল ট্রাম্প প্রশাসনের ঘোষণা

সর্বাধিক পঠিত

পাকিস্তান শান্তিপ্রিয় জাতি কিন্তু হুমকির মুখে ভীত না: পাক সেনাপ্রধান পাকিস্তান শান্তিপ্রিয় জাতি কিন্তু হুমকির মুখে ভীত না: পাক সেনাপ্রধান
যুদ্ধে বিজয়ী হতে সব উপায় অবলম্বন করবে- ভারত যুদ্ধে বিজয়ী হতে সব উপায় অবলম্বন করবে- ভারত
কেলি ক্র্যাফটকে জাতিসংঘে রাষ্ট্রদূত নিয়োগ দিলেন- ট্রাম্প কেলি ক্র্যাফটকে জাতিসংঘে রাষ্ট্রদূত নিয়োগ দিলেন- ট্রাম্প
সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াই, কাশ্মীরের বিরুদ্ধে নয়- মোদি সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াই, কাশ্মীরের বিরুদ্ধে নয়- মোদি
৮ লাখ রোহিঙ্গাকে ফেরত পাঠানোর চেষ্টা চলছে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী ৮ লাখ রোহিঙ্গাকে ফেরত পাঠানোর চেষ্টা চলছে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী
যবিপ্রবির ২০ বিভাগের চেয়ারম্যানের একযোগে পদত্যাগ! যবিপ্রবির ২০ বিভাগের চেয়ারম্যানের একযোগে পদত্যাগ!
গণশুনানির নামে ‘ঘুমানো চক্র’ ষড়যন্ত্র করছে: আইনমন্ত্রী গণশুনানির নামে ‘ঘুমানো চক্র’ ষড়যন্ত্র করছে: আইনমন্ত্রী
সাবেক মন্ত্রীর সাথে বিয়ের পিঁড়িতে সানাই সাবেক মন্ত্রীর সাথে বিয়ের পিঁড়িতে সানাই
কেন শ্রীদেবীর শাড়ি নিলামে তুললেন তার স্বামী ? কেন শ্রীদেবীর শাড়ি নিলামে তুললেন তার স্বামী ?
বানসালী-সালমান ১৯ বছর পর এক সঙ্গে ! বানসালী-সালমান ১৯ বছর পর এক সঙ্গে !
প্রধানমন্ত্রীর জার্মানি সফর উন্নয়ন- কূটনৈতিক সম্পর্ক জোরদার হবে!
খেলাপি ঋণে ‘জিরো টলারেন্স’ চাই
৫ জনই ছাত্রলীগ-যুবলীগ নেতা
দুর্নীতির বিরুদ্ধে প্রকৃত অর্থেই নিতে হবে জিরো টলারেন্স
বেআইনি ব্যাংকিং কার্যক্রমের বিরুদ্ধে বহুমুখী পদক্ষেপ নিন
খাদ্যে অতিরিক্ত ট্রান্সফ্যাটের কারণে, প্রতি বছর বিশ্বে পাঁচ লাখ মানুষের মৃত্যু হয়
স্বাধীনতার পর প্রথমবার ‘মন্ত্রীশূন্য’ কিশোরগঞ্জ
মন চুরির অভিযোগ পুলিশের কাছে!
সৈয়দ আশরাফ যে কবরে সমাহিত হবেন
ব্যবসায়ীদের বিনিয়োগের বাধা দূর করতে হবে?