ঢাকা, নভেম্বর ১৩, ২০১৮, ২৯ কার্তিক ১৪২৫
---
bbc24news.com
প্রথম পাতা » আর্ন্তজাতিক » ইরান-বিরোধী নিষেধাজ্ঞা মানব না- এরদোগান
মঙ্গলবার ● ৬ নভেম্বর ২০১৮, ২৯ কার্তিক ১৪২৫
Email this News Print Friendly Version

ইরান-বিরোধী নিষেধাজ্ঞা মানব না- এরদোগান

---বিবিসি২৪নিউজ,আন্তর্জাতিক ডেস্ক:তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এরদোগান ইরানের বিরুদ্ধে আমেরিকার নিষেধাজ্ঞা পুনর্বহালকে ‘ভুল পদক্ষেপ’ হিসেবে আখ্যায়িত করে বলেছেন, “আমরা এ নিষেধাজ্ঞা মানব না।” তিনি আজ (মঙ্গলবার) আঙ্কারায় পার্লামেন্টারি গ্রুপের বৈঠক শেষে এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, “বিশ্বকে অস্থিতিশীল করার লক্ষ্যে এ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে।”

এরদোগান আরো বলেন, “আমরা একটি সাম্রাজ্যবাদী বিশ্বে বসবাস করতে চাই না।” তুর্কি প্রেসিডেন্ট বলেন, আন্তর্জাতিক আইন ও কূটনৈতিক শিষ্টাচার লঙ্ঘন করে ইরানের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা পুনর্বহাল করা হয়েছে।

এর আগে আজ দিনের শুরুতে জাপান সফররত তুরস্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেভলুত চাভুসওগ্লু ইরানের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা পুনর্বহাল করায় আমেরিকার তীব্র নিন্দা জানান। তিনি বলেন, ইরানকে একঘরে করে ফেলার চেষ্টা হঠকারী ও ‘ভয়ঙ্কর’।

:ছয় মাস আগে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের দেয়া এক ঘোষণা অনুযায়ী গতকাল (সোমবার) থেকে ইরানের বিরুদ্ধে দ্বিতীয় দফা নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে আমেরিকা। এবারের নিষেধাজ্ঞায় ইরানের তেল রপ্তানি ও বহির্বিশ্বের সঙ্গে ইরানের ব্যাংকিং লেনদেনকে টার্গেট করা হয়েছে।

২০১৫ সালে আমেরিকাসহ ছয় জাতিগোষ্ঠীর সঙ্গে স্বাক্ষরিত পরমাণু সমঝোতার ভিত্তিতে এসব নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়া হয়েছিল। গত মে মাসে ট্রাম্প ওই সমঝোতা থেকে একতরফাভাবে তার দেশকে বের করে নেন।

ওয়াশিংটন এর আগে হুমকি দিয়েছিল, ইরানের তেল রপ্তানি শূন্যের কোঠায় নামিয়ে আনতে চায় তারা। কিন্তু নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হওয়ার দু’দিন আগে মার্কিন সরকার তুরস্কের পাশাপাশি চীন, ভারত, ইতালি, গ্রিস, জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া ও তাইওয়ানকে ইরানের কাছ থেকে তেল কেনার অনুমতি দিয়েছে ওয়াশিংটন।

জাপান সফররত তুর্কি পররাষ্ট্রমন্ত্রী আজ টোকিওতে আরো বলেন, “আমি খোলাখুলি বলতে চাই, ইরানকে কোণঠাসা করে ফেলার প্রচেষ্টা বোকামি ছাড়া আর কিছু নয় এবং এ পদক্ষেপ অত্যন্ত ‘ভয়ঙ্কর’। মার্কিন সরকার নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে ইরানের জনগণকে শাস্তি দিচ্ছে যা সম্পূর্ণ অনুচিত। নিষেধাজ্ঞা দিয়ে লক্ষ্য অর্জন করা যাবে বলে উল্লেখ করে চাভুসওগ্লু বলেন, ইরানের সঙ্গে সংলাপে বসার কোনো বিকল্প নেই।


সংলাপের নামে নাটক বন্ধ করুন: মির্জা ফখরুল

ফারাহ প্রদেশে তালেবান হামলা: ২০ আফগান সেনা নিহত


এ বিভাগের আরো খবর...

৩০ ডিসেম্বরের পর নির্বাচন পেছানোর সুযোগ নেই: সিইসি ৩০ ডিসেম্বরের পর নির্বাচন পেছানোর সুযোগ নেই: সিইসি
বিএনপির কাছে যে ১০০ আসন চায় ঐক্যফ্রন্ট বিএনপির কাছে যে ১০০ আসন চায় ঐক্যফ্রন্ট
খাসোগির হত্যাকারীদের বিচারের মুখোমুখি করবে- আমেরিকা খাসোগির হত্যাকারীদের বিচারের মুখোমুখি করবে- আমেরিকা
সৌদির বাদশাহ হচ্ছেন আহমেদ! সৌদির বাদশাহ হচ্ছেন আহমেদ!
পাকিস্তানের আসিয়া বিবিকে আশ্রয় দিতে চায়- কানাডা পাকিস্তানের আসিয়া বিবিকে আশ্রয় দিতে চায়- কানাডা
নির্বাচনের তফসিল নিয়ে এখনও সংকট কাটেনি! নির্বাচনের তফসিল নিয়ে এখনও সংকট কাটেনি!
সু চির খেতাব প্রত্যাহার করল অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল সু চির খেতাব প্রত্যাহার করল অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল
খালেদার প্রার্থীতা নিয়ে বিতর্ক খালেদার প্রার্থীতা নিয়ে বিতর্ক
রোহিঙ্গাদের প্রথম দলকে ফিরিয়ে নেওয়ার জন্য প্রস্তুত হচ্ছে- মিয়ানমার রোহিঙ্গাদের প্রথম দলকে ফিরিয়ে নেওয়ার জন্য প্রস্তুত হচ্ছে- মিয়ানমার
সিঙ্গাপুরে আরসেপ বৈঠক শুরু সিঙ্গাপুরে আরসেপ বৈঠক শুরু

সর্বাধিক পঠিত

৩০ ডিসেম্বরের পর নির্বাচন পেছানোর সুযোগ নেই: সিইসি ৩০ ডিসেম্বরের পর নির্বাচন পেছানোর সুযোগ নেই: সিইসি
পুলিশ প্লাজায় ফ্লোর কিনবে এসিআই পুলিশ প্লাজায় ফ্লোর কিনবে এসিআই
বিএনপির কাছে যে ১০০ আসন চায় ঐক্যফ্রন্ট বিএনপির কাছে যে ১০০ আসন চায় ঐক্যফ্রন্ট
খাসোগির হত্যাকারীদের বিচারের মুখোমুখি করবে- আমেরিকা খাসোগির হত্যাকারীদের বিচারের মুখোমুখি করবে- আমেরিকা
সৎমায়ের কাছ থেকে পেশাদারত্ব শিখতে চাই-সারা সৎমায়ের কাছ থেকে পেশাদারত্ব শিখতে চাই-সারা
সৌদির বাদশাহ হচ্ছেন আহমেদ! সৌদির বাদশাহ হচ্ছেন আহমেদ!
পাকিস্তানের আসিয়া বিবিকে আশ্রয় দিতে চায়- কানাডা পাকিস্তানের আসিয়া বিবিকে আশ্রয় দিতে চায়- কানাডা
বিনিয়োগকারী সব স্টেকহোল্ডারের আলাদা আলাদা দায়িত্ব —বিএসইসি চেয়ারম্যান বিনিয়োগকারী সব স্টেকহোল্ডারের আলাদা আলাদা দায়িত্ব —বিএসইসি চেয়ারম্যান
অ্যাকশন দৃশ্যে কঙ্গনা টম ক্রুজের মতো অ্যাকশন দৃশ্যে কঙ্গনা টম ক্রুজের মতো
হোন্ডার নতুন কারখানা উদ্বোধন মোনেম ইকোনমিক হোন্ডার নতুন কারখানা উদ্বোধন মোনেম ইকোনমিক
বহুল প্রত্যাশিত সংলাপে কি ছিল?
একটি অর্থবহ ও সফল সংলাপের প্রত্যাশা করছি
শেখ হাসিনা বার্ন ইন্সটিটিউটের: প্রত্যাশিত স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত হবে কি?
নদীশাসনের দুর্বলতা বিঘ্নিত হচ্ছে নৌপথে চলাচল
শিল্পে গ্যাস সংযোগ না দেওয়া, আর্থিক ক্ষতির মুখে-সরকার
গুদামের খাদ্যদ্রব্য পাচারে-সক্রিয় চোর সিন্ডিকেট
প্যারিস জলবায়ু চুক্তি ৩০০ পৃষ্ঠার খসড়া অনুমোদন করেছে-ব্যাংকক
সড়ক শৃঙ্খলা-মূল সমস্যাটা রাজনীতিতেই: কাদের
বিশ্বের ভয়াবহ আবহাওয়া নিয়ে প্রযুক্তিগত আলোচনা চলছে
রোহিঙ্গা প্রশ্নে চীন-রাশিয়াকে-জাতিসংঘের কড়া হুুশিয়ারি!