শিরোনাম:
ঢাকা, শুক্রবার, ১৪ মে ২০২১, ৩০ বৈশাখ ১৪২৮

BBC24 News
বুধবার, ১০ মার্চ ২০২১
প্রথম পাতা » আইন-আদালত | প্রিয়দেশ | বিশেষ প্রতিবেদন | শিরোনাম » নির্যাতনের অভিযোগে মামলার করেছে- কার্টুনিস্ট কিশোর
প্রথম পাতা » আইন-আদালত | প্রিয়দেশ | বিশেষ প্রতিবেদন | শিরোনাম » নির্যাতনের অভিযোগে মামলার করেছে- কার্টুনিস্ট কিশোর
৩১৫ বার পঠিত
বুধবার, ১০ মার্চ ২০২১
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

নির্যাতনের অভিযোগে মামলার করেছে- কার্টুনিস্ট কিশোর

---বিবিসি২৪নিউজ,আদালত প্রতিবেদক ঢাকাঃ নিরাপত্তাবাহিনী ধরে নিয়ে যাওয়ার পর থানায় গ্রেপ্তার দেখানোর আগে ‘অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে নির্যাতন’ চালানোর অভিযোগে ‘হেফাজতে মৃত্যু নিবারণ’ আইনে অজ্ঞাতনামা আসামিদের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন কার্টুনিস্ট কিশোর।

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় সম্প্রতি জামিনে মুক্তি পাওয়া কিশোর বুধবার ঢাকার মহানগর দায়রা জজ আদালতে হাজির হয়ে এ মামলার আবেদন করেন।

এ আদালতে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী তাপস পাল বলেন, “বিচারক কে এম ইমরুল কায়েশ বাদীর জবানবন্দি শুনেছেন। এ বিষয়ে তিনি পরে আদেশ দেবেন।

মামলার আরজিতে বলা হয়েছে, গতবছরের ৫মে রমনা থানার ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের একটি মামলায় তাকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়। কিন্তু তারও তিন দিন আগে ২ মে সন্ধ্যা পৌনে ৬টার দিকে সাধারণ পোশাকের ১৬-১৭ জন লোক কাকরাইলের বাসা থেকে তাকে ‘জোর করে হাতকড়া ও মুখে মুখোশ পরিয়ে অজ্ঞাত এক নির্জন জায়গায়’ নিয়ে যায়।

ওই তিন দিন তাকে সেখানে ‘নির্যাতন’ করা হয় অভিযোগ করে তার বিস্তারিত বিবরণও মামলার আর্জিতে তুলে ধরেছেন কিশোর।

সেখানে বলা হয়েছে, গত বছরের ২ মে সন্ধ্যার দিকে কলিং বেলের শব্দে কিশোরের ঘুম ভাঙে। দরজা খুলতেই অপরিচিত এক লোক বলেন, ‘দরজা খোলেন না কন? পরনের লুঙ্গি পরিবর্তন করে প্যান্ট পরে নেন। সাথে একটা ভালো শার্ট।’

কিশোর পরিচয় জিজ্ঞেস করলেও তারা পরিচয় দেননি; তবে নিজেদের মধ্যে কথাবার্তায় তাদের একজনকে ‘জসিম’ নামে ডাকতে শোনার কথা কিশোর তার আর্জিতে লিখেছেন।

সেখানে বলা হয়েছে, অপরিচিত ওই লোকেরা ঘরে ঢুকে তল্লাশি শুরু করে। অথচ কোনো ধরনের পরোয়ানা তারা দেখাতে পারেনি

কিশোরের বাসা থেকে তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোন, কম্পিউটার সিপিইউ, পোর্টেবল হার্ড ডিস্কসহ ডিজিটাল যত ডিভাইস ছিল, সবই তারা নিয়ে যায় বলে অভিযোগ করেছেন কিশোর।

আর্জিতে বলা হয়েছে, কিশোরকে যখন হাতকড়া পরিয়ে বসার নিচে নামিয়ে আনা হয়, তখন সেখানে ছয়-সাতটি গাড়ি অপক্ষো করছিল। তাকে একটি গাড়িতে তোলার সময় বাসার সামনে অনেক মানুষ জড়ো হয়েছিল। গাড়িতে তোলার পর কিশোর চিৎকার শুরু করলে সেই শব্দ চাপা দিতে জোরে গান বাজানো হয়, যাতে চিৎকারের শব্দ বাইরে না যায়।



আর্কাইভ

মাস্ক পরা নিশ্চিত করতে বিচারিক ক্ষমতা পাচ্ছে পুলিশ
ইসরায়েলি- আল-আকসা মসজিদে হামলায় প্রধানমন্ত্রীর নিন্দা
সাবেক এসপি বাবুল আক্তার স্ত্রীকে খুন করাতে তিন লাখ টাকা দিয়েছিলেন
ইসরাইলি বর্বর হামলায় নিহত ৩৫
চীনের ৫ লাখ টিকা ঢাকায় পৌঁছেছে
চীনা রাষ্ট্রদূতের জবাবে দিয়েছেনঃ পররাষ্ট্রমন্ত্রী
মার্কিন যুদ্ধ জাহাজ-ইরানি নৌবহরে ৩০ দফা গুলি
খালেদা জিয়ার বিদেশে চিকিৎসা বিষয় সব পথ খতিয়ে দেখবে-বিএনপি
অবশেষে ফেরি চলাচলের অনুমতি দিয়েছে -সরকার
বাংলাদেশে টাকায় করোনা আরএনএর উপস্থিতি !