শিরোনাম:
ঢাকা, শুক্রবার, ১৪ মে ২০২১, ৩০ বৈশাখ ১৪২৮

BBC24 News
সোমবার, ২৬ এপ্রিল ২০২১
প্রথম পাতা » পরিবেশ ও জলবায়ু | প্রিয়দেশ | রাজনীতি | শিরোনাম | সাবলিড » হেফাজতের কেন্দ্রীয় কমিটি বিলুপ্ত পর আহ্বায়ক কমিটি গঠন
প্রথম পাতা » পরিবেশ ও জলবায়ু | প্রিয়দেশ | রাজনীতি | শিরোনাম | সাবলিড » হেফাজতের কেন্দ্রীয় কমিটি বিলুপ্ত পর আহ্বায়ক কমিটি গঠন
১৭৯ বার পঠিত
সোমবার, ২৬ এপ্রিল ২০২১
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

হেফাজতের কেন্দ্রীয় কমিটি বিলুপ্ত পর আহ্বায়ক কমিটি গঠন

---বিবিসি২৪নিউজ,নিজস্ব প্রতিনিধিঃ হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণার কয়েক ঘণ্টা পরই সংগঠনটি একটি আহ্বায়ক কমিটি ঘোষণা করেছে। আহ্বায়ক কমিটিরও প্রধান হয়েছেন বিলুপ্ত কমিটির আমির জুনায়েদ বাবুনগরী।রাত সাড়ে তিনটার দিকে এক ভিডিও বার্তার মাধ্যমে হেফাজতে ইসলামের নেতা নুরুল ইসলাম জিহাদি আহ্বায়ক কমিটির ঘোষণা দেন। এরপর সকালে একটি সংবাদ বিবৃতির মাধ্যমে জানানো হয় আহ্বায়ক কমিটির সদস্য সংখ্যা তিনজন। বাকী দুজন সদস্য হচ্ছেন: মুহিবুল্লাহ বাবুনগরী - প্রধান উপদেষ্টা নুরুল ইসলাম জিহাদি - সদস্য সচিব বিবৃতিতে বলা হয়, “চলমান অস্থির ও নাজুক পরিস্থিতি বিবেচনায় হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় ও মহানগর কমিটি বিলুপ্তি ঘোষণা পরবর্তী উপদেষ্টা কমিটির পরামর্শেক্রমে ৩ সদস্য বিশিষ্ট আহবায়ক কমিটি ঘোষণা করা হলো”। সদস্য সচিব মি. জিহাদি ভিডিও বার্তায় বলেছেন, এই আহ্বায়ক কমিটির মাধ্যমে হেফাজতে ইসলামের যাবতীয় কর্মসূচী পরিচালিত হবে। সংগঠনের লিখিত বিবৃতিতে আহ্বায়ক কমিটির সদস্য সংখ্যা তিন জন উল্লেখ করা হলেও মি. জিহাদি তার ভিডিও বার্তায় সদস্যের সংখ্যা ৫ জন বলে উল্লেখ করেছেন। বাকী দুজন সদস্যের নাম তিনি উল্লেখ করেন, সালাউদ্দিন নানুপুরি এবং মিজানুর রহমান চৌধুরী। এদের দুজনকেই অরাজনৈতিক সদস্য হিসেবে কমিটিতে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে বলে উল্লেখ করেন মি. জিহাদি।রবিবার রাত এগারোটার সময় প্রকাশ করা এক সংক্ষিপ্ত ভিডিও বার্তায় হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা করেন সংগঠনটির আমীর জুনায়েদ বাবুনগরী। এই সিদ্ধান্তের পেছনে কারণ হিসেবে মি. বাবুনগরী ‘দেশের সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনায়’ নেয়ার কথা উল্লেখ করেছেন। তার ব্যক্তিগত একজন কর্মকর্তা ভিডিও বার্তার সত্যতা নিশ্চিত করেন। সম্প্রতি হেফাজতের নেতাদের গ্রেপ্তার অভিযানের মুখে সংগঠনটির পক্ষ থেকে সরকারের সাথে একটি সমঝোতা চালানোর চেষ্টা হচ্ছিল। সংগঠনটির অনেক নেতাই এই সমঝোতার চেষ্টার কথা গত কয়েকদিন নানাভাবে তুলে ধরেছেন। এখন অনেকটা আকস্মিকভাবেই সংগঠনের আমির কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা করেন। জুনায়েদ বাবুনগরী ভিডিও বার্তায় বলেন, “দেশের সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনায় দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ার সবচেয়ে বড় অরাজনৈতিক সংগঠন এবং দ্বীনি সংগঠন হেফাজত ইসলাম বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় কমিটিকে কিছু গুরুত্বপূর্ণ সদস্যের পরামর্শক্রমে বিলুপ্ত ঘোষণা করা হল”। তবে তিনি বলেছেন, “আগামীতে আহ্বায়ক কমিটির মাধ্যমে আবার হেফাজতে ইসলামের কার্যক্রম শুরু হবে”। অবশ্য এই ভিডিও প্রকাশের কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই সেই আহ্বায়ক কমিটি ঘোষণা করা হলো। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বাংলাদেশ সফরের সময়, গত ছাব্বিশে মার্চ থেকে তিন দিন ধরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া, চট্টগ্রামের হাটহাজারী ও ঢাকাসহ বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে সহিংস বিক্ষোভ হয়, যাতে অন্তত সতের জন মারা যায়। এই সহিংসতার ঘটনাগুলো নিয়ে প্রায় একশোটির বেশি মামলা হয়েছে, যাতে হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় পর্যায়ের নেতাসহ অনেক নেতা-কর্মীকে অভিযুক্ত করে তাদেরকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। প্রতিষ্ঠাতা আমীর আহমেদ শফির মৃত্যুর পর গত বছর নভেম্বর মাসে হেফাজতে ইসলামের নতুন কমিটি গঠন করে তার আমীর হন জুনায়েদ বাবুনগরী। এই কমিটি গঠন নিয়ে তখন সংগঠনটির একটি অংশ ক্ষুব্ধ হয়েছিল এবং প্রয়াত আমীর আহমেদ শফির ছেলে ও তার অনুসারীরা কমিটিকে প্রত্যাখ্যান করেছিল।



আর্কাইভ

মাস্ক পরা নিশ্চিত করতে বিচারিক ক্ষমতা পাচ্ছে পুলিশ
ইসরায়েলি- আল-আকসা মসজিদে হামলায় প্রধানমন্ত্রীর নিন্দা
সাবেক এসপি বাবুল আক্তার স্ত্রীকে খুন করাতে তিন লাখ টাকা দিয়েছিলেন
ইসরাইলি বর্বর হামলায় নিহত ৩৫
চীনের ৫ লাখ টিকা ঢাকায় পৌঁছেছে
চীনা রাষ্ট্রদূতের জবাবে দিয়েছেনঃ পররাষ্ট্রমন্ত্রী
মার্কিন যুদ্ধ জাহাজ-ইরানি নৌবহরে ৩০ দফা গুলি
খালেদা জিয়ার বিদেশে চিকিৎসা বিষয় সব পথ খতিয়ে দেখবে-বিএনপি
অবশেষে ফেরি চলাচলের অনুমতি দিয়েছে -সরকার
বাংলাদেশে টাকায় করোনা আরএনএর উপস্থিতি !